Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০৬:৫২ অনলাইন ভার্সন
আপডেট :
নৈবেদ্য (২৯-৩১)
দিদার মুহাম্মদ
নৈবেদ্য (২৯-৩১)

নৈবেদ্য ২৯

কামনা ও প্রার্থনা চর্বিত চর্বণ
আর ফিরে থাকা বিদ্রোহ
কামনা আর প্রার্থনাই কি ভালো নয়,
যখন বিদ্রোহ নিলামে?
নৈবেদ্যের স্তুপ সরিয়ে ফেলেছি
কেননা দেবীই আড়াল হয়ে যাচ্ছিল।

নৈবেদ্য ৩০
আর কালক্ষেপণ নয়
মন্দিরার শেষ তেহাই বাজার আগেই
তার যথার্থ অধিষ্ঠান চাই
মাটির দেউল ভেঙে দেবীকে উদ্ধার করবই।

নৈবেদ্য ৩১
ভেবেছিলাম এই পূর্ণিমায়
তোমার জপনায় মশগুল থাকব
ভুল সময়ে এলো অবসর
তুমি করনি মানা
হায়! প্রিয়, কৃষ্ণপক্ষ ততক্ষণে
মন্দিরে দিল হানা।

কবি: সাবেক শিক্ষার্থী, বাংলা বিভাগ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়। বর্তমান শিক্ষার্থী, মাস্টার অব পারফর্মিং আর্টস​, বেঙ্গালুর বিশ্ববিদ্যালয়, ভারত।


বিডি প্রতিদিন/১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৭/হিমেল

আপনার মন্তব্য

up-arrow