Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : সোমবার, ২০ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২০ জুন, ২০১৬ ০০:৩৫
আরও যা কিছুর ওপর করারোপ করা যেত
আরও যা কিছুর ওপর করারোপ করা যেত

বাজেটে করারোপ নিয়ে সর্বত্র আলোচনা চলছে। তবে সৌভাগ্যবশত অনেক কিছুর ওপরই করারোপ করা হয়নি।

এমন কি কি বাদ গেলে আসুন জেনে নেওয়া যাক। জানাচ্ছে— সোহানুর রহমান অনন্ত

 

ফেসবুক স্ট্যাটাসের ওপর কর : ফেসবুকে আদার বেপারী, লতুপুতু, সবাই এখন স্ট্যাটাস দিতে ব্যস্ত। হোম পেইজ অখ্যাদ্য স্ট্যাটাসে টইটম্বুর থাকে সব সময়। আর তাই এইসব অহেতুক স্ট্যাটাস কমাতেই প্রতিটি স্ট্যাটাসের ওপর কর আরোপ করা যেত। এতে অন্তত হোম পেইজ অহেতুক ফেসবুক স্ট্যাটাসমুক্ত থাকত।

 

সিরিয়ালের ওপর কর :  সংসারে অশান্তির অন্যতম কারণ হলো— বিদেশি সিরিয়াল। এটা নিয়ে সংসারে ক্যাঁচাল লেগেই থাকে। তাই সিরিয়াল দেখার ওপর কর আরোপ করা যেতে পারত। দিনে একটার বেশি বিদেশি সিরিয়াল দেখলে অতিরিক্ত ট্যাক্স দিতে হবে। তাহলে অন্তত দেশীয় চ্যানেলগুলো বেশি দেখা হতো।

 

উল্টাপাল্টা কথার ওপর কর : রাস্তা কিংবা লোকাল বাস, মঞ্চ কিংবা চায়ের দোকান। কিছু কিছু পাবলিক আছে যেখানে সুযোগ পায় সেখানেই উল্টাপাল্টা বক্তৃতা দেওয়া শুরু করে। তাই উল্টাপাল্টা কথার ওপর কর আরোপ করা উচিত। এটা করলে অন্তত পাবলিকের আজাইরা কথা শুনতে হবে না।

অতিরিক্ত মেক আপের ওপর কর : এখন মেয়েরা যে পরিমাণে ভারি মেক আপ মুখে দেয় তাতে কোনটা সত্যিকারের চেহারা বুঝতে সমস্যা হয়। তাই অহেতুক ভারি মেক আপের ওপর কর আরোপ করা যেত।

ভুঁড়ির ওপর কর : দেশে যে ভুঁড়ির বাম্পার ফলন হয়েছে। সেটা রাস্তায় নামলেই টের পাওয়া যায়। আর এই ভুঁড়িওয়ালাদের নিয়ে হয়েছে যত যন্ত্রণা।   এরাই একাই দুজনের জায়গা দখল করে বসে থাকে। সে কারণে ভুঁড়ির ওপর কর আরোপ করা প্রয়োজন ছিল। যার যত বড় ভুঁড়ি তার কর তত বেশি।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow