Bangladesh Pratidin

সাজঘর

আরমেনিয়ান চার্চের ভেতরবাগে গলিঘুঁজি তালাশে— ইয়ামুনা বুথখুজি , নাম শুনে ঘাবড়ে যাইনি ঠোঁটে উন্নাসিকতা উসকে ছিল রংভরা ঠোঁটে; প্রসিদ্ধ সে ব্যালে নাচে কয়লাও নাকি কাচ হয় তার নান্দনিক আঁচে...   আসি সাজঘরে— কান্নাভেজা পাণ্ডুলিপির পাশে প্রসাধন থরে বিথরে, অজানতে মন বলে—দৃষ্টিনন্দন হে শাবাশ পালকের কাঁচুলি…

ঘুমকে এবার ঘুমিয়ে দেব

খুব মনে হয়, রাত ভেজা এই ভোরের বিমল কান্তিতে মেলে দেব সব নিঃশ্বাসটুকু শেষ বিকেলের শ্রান্তিতে।   চায়ের ধুলোটে ধোঁয়ায় ধোঁয়াশায় সেইটুকুও যায় ঘিরে দরোজায় দেখি মেঘ আগন্তুক-জল সুখটুকুও খায় ছিঁড়ে।   খুব মনে হয়, ঘুমকে এবার ঘুমিয়ে দেব ভিন ভুলোকে যেন না জাগে কষ্ট দুপুর, হৃদ কন্যার সুখ পুলকে।   পোড়ে মন্দিরে পুজোর…

পানি ভাঙে না

ঠিল্লা ডাঙে মাটির ঠিল্লা পানি ভাঙে না পানির ওপর পানি নাচে সুখ ভাঙে শান্তি ভাঙে, সে তো ভাঙে না বানের জলে ভাসেরে মন গাদলাবরণ ঘ্রাণ কে বলে-যাই, দেখে আসি ঘ্রাণের পরান

লোরকার চিঠি ও ব্লাড ওয়েডিং

গার্সিয়া লোরকার চিঠিতে পরিবারের প্রতি কোনো ব্যাকুলতা নেই, নাকি আছে? আর বন্ধুদের জন্য চাপা উদ্বেলিত পত্রে?   এসব প্রশ্নের প্রতিটি উত্তরই ধরে নেবার মতো সত্য   যিনি তার পত্রগুলোর প্রকৃত চিকিৎসক এবং সত্য উদ্ঘাটনে একটা জীবন নিপাত করেছেন তার সামনে হেঁটে যেতে রক্তপাতের বিপরীতে বৃষ্টিপাত শুরু হয়ে গেল   তার…
up-arrow