Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ৭ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৬ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:০৯
ঘুমের ওপারে ঘুম
আশরাফ আহমদ

অনুসঙ্গ, উপাদান যা যা লাগে,

বাড়িভর্তি সব। আয়োজনে কমতি নেই,

প্রয়োজন উপচে পড়ছে।

বদ্যি-হাকিম-কবিরাজ, কেউ বাদ নেই।

আর সবাইকে ব্যর্থ করে দিয়ে,

ঘুম চলে গেছে দূরে—

সমুদ্র-বিহারে, বিদেশে বা মহাবিশ্ব ছেড়ে।

 

ঘুমের বড়ির জন্য বাম হাত উদ্বাহু,

ডান হাতে অঘুমের রাত,

মাঝখানে আমি আর আমার পায়চারি।

 

শেষরাতে হুতুমের ডাকে ধৈর্য- ধপাস,

ছত্রখান ওষুধ-পথ্য।

থামি, নতজানু হই, বলি—

তোমার সৌন্দর্যে ডুবে আমার মৃত্যু হোক,

অন্য কোনো আলো না, অন্য আশা না, শুধু   

অনিদ্রা তোমার চোখে আমার ঘুমেরা থাক।

 

আদিগন্ত হতাশার ওমে এলায়িত

লাজুক বিড়ালে নামে ন্যুব্জতা।

বাইরে ভোরের আলো উঁকি দিলে,

পর্দা টেনে দিই।

ধীরে ধীরে ঘুমের অথৈ জলে যাবতীয় সন্তরণ,

নাক ডাকে—।

আর তার প্রতিবেশী ক্রমে নাসিকা-গর্জন ছন্দে

তলিয়ে যেতেই থাকে অপার আনন্দ-ঘুমে।

 

আর ঘুমের ট্যাবলেট হাতে

বিবেকের মতো ঠায় মোহিত কামাল

বোকা তাকিয়ে থাকেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow