Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২১ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২০ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৩৭
বিদেশি কোচের নিরাপত্তা নিয়ে ভাবনা
ক্রীড়া প্রতিবেদক

পেশাদার ফুটবল লিগে প্রতিটি ক্লাবে বিদেশি ফুটবলাররা খেলবেন। ঢাকার ক্লাবে বিদেশি খেলোয়াড় খেলা নতুন কিছু নয়। কিন্তু এবার পরিস্থিতি ভিন্ন। গোটা বিশ্বের মতো বাংলাদেশও নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। বিশেষ করে বিদেশিদের ওপর হামলার আশঙ্কা উড়িয়ে দেওয়া যায় না। ঢাকায় বিদেশি ফুটবলাররা স্বাধীনভাবে ঘুরতো ক্লাব থেকে তেমন বিধিনিষেধ ছিল না। নিজেদের ইচ্ছামতো হোটেলে থাকতেন। এ জন্য অনেক অঘটনের শিকারও হয়েছেন। মৃত্যুর ঘটনা পর্যন্ত ঘটেছে। গুলশানের ট্র্যাজেডির পর ক্লাবগুলো বেশ সতর্ক। বিদেশিদের সতর্ক হয়ে চলাফেরার  নির্দেশ দেওয়া হয়েছে ক্লাব থেকে।

বিষয়টি নিয়ে ক্লাবগুলো এখনো ফেডারেশনের সঙ্গে কথা বলেনি। লিগের আগেই নিরাপত্তার সহযোগিতা চাইতে পারে।  প্রশ্ন উঠেছে বিদেশি ফুটবলারদের কীভাবে নিরাপত্তা দেওয়া যায়। পুলিশ ক্লাব বা খেলার দিন মাঠে উপস্থিত থাকতে পারেন। কিন্তু মার্কেটিং বা কোথাও ঘুরতে গেলে সার্বক্ষণিক পুলিশ রাখাতো সম্ভব নয়।

শুধু খেলোয়াড় নয়। বিদেশি কোচদের নিরাপত্তার বিষয়টি ভাবছে ফেডারেশন। বড় দুই খেলা ক্রিকেট ও ফুটবলে হেড কোচের দায়িত্বে রয়েছেন বিদেশি। ক্রিকেটে আলাদাভাবে বিদেশি কোচ আসতে পারে। হকিতেও বিদেশি কোচের নিয়োগের কথাবার্তা চলছে। সত্যি বলতে কি কোচরা অনেকটা খোলামেলাভাবেই সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন, এই সময় তাদের ওপর হামলা করাটা এমন কোনো কঠিন কাজ নয়। যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী ড. বীরেন শিকদার বা উপমন্ত্রী আরিফ খান জয় বিষয়টি গুরুত্বসহকারে দেখছেন কিনা সেটাই দেখার বিষয়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow