Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:২৮
মেসির হ্যাটট্রিকে বার্সার গোল বন্যা
ক্রীড়া ডেস্ক
মেসির হ্যাটট্রিকে বার্সার গোল বন্যা
হ্যাটট্রিক করার পর লিওনেল মেসি —এএফপি

বিশ্ব ফুটবলের বর্তমানে তারকা অভাব নেই। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, লিওনেল মেসি, সার্জিও অ্যাগুইরো, ইব্রাহিমোভিচ, ওয়েই রুনি, গ্রিজম্যানদের মতো তারকারা মাঠ মাতাচ্ছেন। কিন্তু এদের মধ্যে যোজন যোজন এগিয়ে রোনালদো ও মেসি। দুজনের মধ্যে অলিখিত প্রতিদ্বন্দ্বিতা চলমান। দুজনে খেলছেন দুই চির প্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনা। দুজনের পারফরম্যান্সের উপরই নির্ভর করে দলের সাফল্য। দলের পাশাপাশি দুজনের প্রতিদ্বন্দ্বিতাটাও বেশ। একজন রেকর্ড গড়েন তো, পরক্ষণে আরেকজন সেটা ভেঙে দেন। চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও দেখা গেল দুই তারকা ফুটবলারের রেকর্ড গড়া আর ভাঙার খেলা। বার্সা তারকা মেসি ভাঙলেন রোনালদোর হ্যাটট্রিকের রেকর্ড। বিপরীতে রোনালদো গড়লেন চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সবচেয়ে বেশি ফ্রি কিকে গোলের রেকর্ড। দুজনের রেকর্ড ভাঙা গড়ার খেলায় জয় পেয়েছে রিয়াল  ও বার্সেলোনা। মেসির হ্যাটট্রিকে বার্সা যতটা সহজ জয় পেয়েছে, ঠিক ততটাই কষ্টার্জিত জয় পেয়েছে রিয়াল। শেষ ৫ মিনিটের ম্যাজিকে রিয়াল ২-১ গোলে স্পোর্টিং লিসবনকে হারিয়ে শুরু করেছে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা মিশন। মেসির হ্যাটট্রিকে বার্সেলোনা ৭-০ গোলে হারিয়েছে সেল্টিককে। দুই বিশ্ব তারকার লড়াইয়ে যখন মুগ্ধ ফুটবলপ্রেমীরা তখন আড়ালে নিজের জাত চিনিয়ে যাচ্ছেন ম্যাঞ্চেষ্টার সিটির আর্জেন্টাইন তারকা সার্জিও অ্যাগুইরো। অ্যাগুইরোর হ্যাটট্রিকে ম্যান সিটি ৪-০ গোলে হারিয়েছে বরুশিয়া মনশেনগ্লাডবাখকে। বার্নাব্যুতে যখন স্পোর্টিং লিসবনের সমর্থকরা জয়োৎসব শুরু করে দিয়েছিলেন, তখনই তাদের সুখানন্দে পেরেক ঠুঁকে দেন রোনালদো ও আলবার্তো মোরাতা। ৮৮ মিনিট পর্যন্ত ১-০ গোলে এগিয়েছিল রোনালদোর দেশ পর্তুগালের দল স্পোর্টিং লিসবন। এক সময় মনে হচ্ছিল চেজারের দেওয়া গোলটাই ম্যাচের ব্যবধান গড়ে দিবে। কিন্তু ইউরো চ্যাম্পিয়ন রোনালদো ৮৯ মিনিটে সমতায় ফেরান রিয়ালকে। ফ্রি কিকে অসাধারণ গোল করে ভেঙে দেন ইতালিয়ান লিজেন্ডারি ফুটবলার আলেসান্দ্রো দেলপিয়েরোর ১১টি ফ্রি কিকে গোলের রেকর্ড। রোনালদোর ফ্রি কিকে গোলের রেকর্ড এখন ১২টি। ম্যাচের অতিরিক্ত সময়ে জয়সূচক গোলটি করেন মোরাতা। পিছিয়ে পড়েও অবিশ্বাস্য জয়ে দলের শিষ্যদের প্রশংসায় ভাসিয়েছেন কোচ জিনেদিন জিদান, ‘জিতেই আমরা খুশি। কেননা আমরা শেষ পর্যন্ত লড়েছি। পিছিয়ে পড়েও আমরা কখনো হাল ছাড়িনি। ফুটবলাররা প্রচণ্ড চেষ্টা করেছেন এবং সেটার ফলও পেয়েছেন। সবচেয়ে বড় বিষয় হচ্ছে, এটাই রিয়াল মাদ্রিদ এবং এক মিনিটের মধ্যে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দিতে পারি।’ লা লিগার ম্যাচে হেরেছিল বার্সেলোনা। সেই ধাক্কা সামলে নেয় চ্যাম্পিয়ন্স লিগে। স্কটিশ চ্যাম্পিয়ন সেলটিককে নিয়ে রীতিমতো ছেলেখেলায় মেতেছিলেন মেসি, নেইমার, সুয়ারেজরা। মেসির হ্যাটট্রিকে বার্সা ৭-০ গোলে বিধ্বস্ত করেছে সেলটিককে। তার হ্যাটট্রিক চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ষষ্ঠ। এর আগে ৫টি হ্যাটট্রিক করে সবার উপরে ছিলেন রিয়াল তারকা রোনালদো। তিনটি করে হ্যাটট্রিক রয়েছে মারিও গোমেজ, ফিলিপ্পে ইনজাগি ও লুইস আদ্রিয়ানোর।

up-arrow