Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শনিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:১৩
‘দেশের হয়ে খেলা সম্মানের’
ক্রীড়া প্রতিবেদক
‘দেশের হয়ে খেলা সম্মানের’
তামিম ইকবাল

প্রতিপক্ষ হিসেবে আফগানিস্তানকে দুবার পেয়েছে বাংলাদেশ। প্রথমবার ফতুল্লা স্টেডিয়ামে এশিয়া কাপে। সেবার হেরেছিল টাইগাররা। বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে ওই হার অন্যতম অঘটন বলে বিবেচিত। ম্যাচটি হারলেও সেই কষ্টের সাক্ষী ছিলেন না বাঁ হাতি ড্যাসিং ওপেনার তামিম ইকবাল। আফগানিস্তানের বিপক্ষে হারের প্রতিশোধ নিয়েছিল টাইগাররা বিশ্বকাপ ক্রিকেটে। ক্যানবেরার প্রতিশোধের ম্যাচে তামিমের ব্যাট থেকে বেরিয়েছিল ১৯ রানের সময়োপযোগী ইনিংস। তামিম এখন বাংলাদেশ ক্রিকেটের অন্যতম সেরা স্তম্ভ ও সিনিয়র ক্রিকেটার। তার ব্যাটের ওপর নির্ভর করে দলের হার-জিৎ। ২০০৭ সাল থেকে বাংলাদেশের গ্রিন ক্যাপ পরে খেলছেন তামিম। টেস্ট ক্রিকেটে ৩ হাজারের ওপর, ওয়ানডে ক্রিকেটে প্রায় ৫ হাজার ও টি-২০ ক্রিকেটে হাজারের ওপর রান করা তামিম বাংলাদেশের জার্সি গায়ে মাঠে নামাকে সবচেয়ে বড় সম্মানের মনে করেন।

অনুশীলনের সময় আঙ্গুলে ব্যথা পেয়েছিলেন। তখন মনে হচ্ছিল আফগানিস্তান সিরিজে খেলা হবে না বাঁ হাতি ওপেনারের। কিন্তু দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠেন এবং তাকে নিয়েই প্রথম দুই ওয়ানডের স্কোয়াড ঘোষণা করেছে নির্বাচক প্যানেল। আফগানিস্তান সিরিজের পরপরই ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পরম আরাধ্য সিরিজ। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট ও ওয়ানডে সিরিজ খেলবে বাংলাদেশ। ইংলিশদের বিপক্ষে সবচেয়ে সফল পারফরমারদের একজন তামিম। ইংল্যান্ডের আগে প্রতিপক্ষ দুর্বল শক্তির আফগানিস্তান; এটা কতটা অনুপ্রাণিত করবে বাংলাদেশকে— এ নিয়ে টেকনিক্যালি উত্তর দিলেন তামিম প্রতিপক্ষ আফগানিস্তানকে হালকা মেজাজে না দেখে, ‘প্রতিপক্ষ যে দলই হোক না কেন, নিজেদের অনুপ্রাণিত করা এখন কোনো সমস্যা নয়। আর আফগানিস্তানের বিপক্ষে আমরা ওয়ানডে ম্যাচ খেলব। দল জিতলে, কিংবা কেউ সেঞ্চুরি করলে, অথবা কেউ ৫ উইকেট নিলে, সেসব কিন্তু রেকর্ড বইয়ে লেখা থাকবে। প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান, অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড— যেই হোক, আমরা সব সময় একই রকমভাবে অনুপ্রাণিত হই। সবচেয়ে বড় বিষয় হচ্ছে, আমরা সবাই খেলছি দেশের পক্ষে। এর চেয়ে বড় অনুপ্রেরণার আর কী আছে?’

আজকের তামিম ইকবালের পরিচয় বাংলাদেশের ক্রিকেটার হিসেবে। বাংলাদেশের জার্সি গায়ে ৪২ টেস্টে রান করেছেন ৩১১৮। সর্বোচ্চ ২০৬ ও সেঞ্চুরি ৭টি। ১৫৩ ওয়ানডেতে রান করেছেন ৪৭১৩। সেঞ্চুরি ৬টি, হাফসেঞ্চুরি ৩২টি। আফগানিস্তান ও ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মোট ৬ ম্যাচে ২৮৭ রান করলেই বাংলাদেশের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে ওয়ানডে ক্রিকেটে ৫ হাজারি ক্লাবে নাম খেলাবেন তামিম। ৫২ টি-২০ ম্যাচে রান ১১৫৪। বাংলাদেশের জার্সি গায়ে খেলাটাকেই সবচেয়ে বড় সম্মানের মানছেন তামিম, ‘বাংলাদেশের পক্ষে খেলাই সবচেয়ে বেশি সম্মানের। সবচেয়ে বেশি অনুপ্রাণিত করার লক্ষ্যই এটা।’

up-arrow