Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২২:৫৪
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় আফ্রিদির
ক্রীড়া ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় আফ্রিদির

টেস্ট ও ওয়ানডেকে আগেই বিদায় জানিয়েছিলেন। শুধু খেলছিলেন টি-২০।

এখন এই ফরম্যাট থেকেও অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন পাকিস্তানের সাড়া জাগানো ক্রিকেটার শহীদ আফ্রিদি। ১৯৯৬ সালের অক্টোবরে কেনিয়ায় চার জাতি টুর্নামেন্টে অভিষেক হয়েছিল তার। জীবনের দ্বিতীয় ওয়ানডেতেই ৩৭ বলে সেঞ্চুরি করে হৈচৈ ফেলে দিয়েছিলেন ক্রিকেট দুনিয়ায়। এরপর থেকেই বিশ্ব ক্রিকেটে আলোচিত হয়ে ওঠেন আফ্রিদি। ২১ বছরের বর্ণাঢ্য ক্রিকেট ক্যারিয়ারের পরিসমাপ্তি ঘটল। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে বিদায় নিলেন বিশ্ব ক্রিকেটে অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার আফ্রিদি।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে বিদায়টা তার এক প্রকার হয়েই গিয়েছিল। গত বছর ভারতে টি-২০ বিশ্বকাপে পাকিস্তানকে নেতৃত্ব দেওয়ার পর তিনি আর জাতীয় দলে সুযোগ পাননি। বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ার হলেও তার বিদায়টা হলো অনেকটা নীরবেই। আফ্রিদি জানিয়েছেন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে বিদায় নিলেও আরও দুই বছর পাকিস্তানের ঘরোয়া টি-২০ লিগ খেলবেন। বিদায় নেওয়ার দিনে পাকিস্তান সুপার লিগে দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলেছেন। শারজায় পেশোয়ার জালমির হয়ে করাচি কিংসের বিপক্ষে ২৮ বলে ৫৪ রানের ইনিংসটি পুরোনো আফ্রিদিকে মনে করিয়ে দেয়।

পাকিস্তানের হয়ে ১৯৯৬ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত ৩৯৮টি ওয়ানডে খেলেছেন আফ্রিদি। ৩৯টি ফিফটি ও ৬ সেঞ্চুরিতে তার রান ১৮ হাজার ৬৪। টেস্ট খেলেছেন মাত্র ২৭টি—বড় সংস্করণে ব্যাট থেকে রান আসে ১ হাজার ৭১৫। সেঞ্চুরি আছে ৫টি। ৯৮টি টি-২০ আন্তর্জাতিক ম্যাচে রান ১ হাজার ৪০৫।

বোলার আফ্রিদির রেকর্ড আরও সমৃদ্ধ। ৯৭টি উইকেট নিয়ে টি-২০ তে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি তিনি। ওয়ানডেতে তার উইকেট ৩৯৫। টেস্টও একেবারে খারাপ নয়। ২০১০ সালে টেস্ট ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন। ২০১৫ সালে বিশ্বকাপের পর ওয়ানডেকে বিদায় জানান আফ্রিদি।

up-arrow