Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : শুক্রবার, ১৩ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ১২ অক্টোবর, ২০১৭ ২৩:৫৬
উত্সবে ভাসছে পানামা কাঁদছে সিরিয়া
ক্রীড়া ডেস্ক
উত্সবে ভাসছে পানামা কাঁদছে সিরিয়া

পাহাড়সম চাপের মুখে অসাধারণ দক্ষতায় হ্যাটট্রিক করেন লিওনেল মেসি। বিশ্বসেরা ফুটবলারের হ্যাটট্রিকের তুলনায় শুধুই তিনি।

হারলে বিদায়, সেখান থেকে জাদুকরি ফুটবল খেলে প্রিয় আর্জেন্টিনাকে টেনে তুলেন বিশ্বকাপের চূড়ান্ত পর্বে। মেসির জাদুতে এখনো আনন্দে ভাসছে আর্জেন্টিনা। উচ্ছ্বাস, উৎসবের দেশে রূপ নিয়েছে মধ্য আমেরিকার অপরূপ সৌন্দর্য্যের দেশ পানামা। দুই আমেরিকার সংযোগ ‘পানামা খাল’-এর জন্য খ্যাত সবুজ ছোট্ট দেশটি প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ ফুটবলের মহামঞ্চে খেলবে। সেই আনন্দে একদিনের সরকারি ছুটি উপভোগ করছে দেশটি। বিপরীত চিত্র যুদ্ধ বিধ্বস্ত সিরিয়ায়। কাঁদছে দেশটির ফুটবলপ্রেমীরা। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশটি স্বপ্ন দেখেছিল প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ খেলার। কিন্তু সেই স্বপ্নের কফিনে শেষ পেরেকটি ঠুকে দেয় অস্ট্রেলিয়া। ফলে বিশ্বকাপে খেলার স্বপ্ন নতুন করে দেখতে ফের চার বছর অপেক্ষা করতে হবে হাজার বছরের ইতিহাসের সাক্ষী মধ্যপ্রাচ্যের দেশটিকে। হাসছে পানামা, কাঁদছে সিরিয়া-‘হেডলাইন’ সংবাদের দুটি ছবির একটিতে বিশ্বকাপ খেলার আনন্দে হাসছে পানামার নাগরিক প্রিয় পতাকা হাতে। আরেকটি ছবিতে শেষ মুহূর্তে গোলে হেরে কান্নায় ভেঙে পড়েছেন সিরিয়ান নাগরিক। অথচ দেশটির লাখো কোটি নাগরিক গত তিন বছর ধরেই বিশ্বকাপ খেলার স্বপ্ন লালন করে চলেছিল বুকে। এশিয়া থেকে ইরান, দক্ষিণ কোরিয়া, জাপান ও সৌদি আরব সরাসরি বিশ্বকাপ খেলার টিকিট কেটে নেয়। পঞ্চম দল খেলবে প্লে-অফ। সেই প্লে-অফে মুখোমুখি হয় অস্ট্রেলিয়া ও সিরিয়া। প্রথম ম্যাচে ১-১ গোলে ড্র হয়। দ্বিতীয়টি হেরে যায় ১-২ গোলে। এই হারেই স্বপ্ন ভঙ্গ হয় সিরিয়ার। মধ্য আমেরিকা অঞ্চল থেকে বিশ্বকাপে খেলতে জিততেই হতো পানামাকে। হেরে গেলে প্লে-অফ খেলারও সুযোগ থাকতো না। এমন চাপে বেসামাল হয়ে পড়ার কথা। কিন্তু সেটা হয়নি। বরং উজ্জীবিত ফুটবল খেলে ২-১ গোলে কোস্টারিকাকে হারিয়ে সরাসরি বিশ্বকাপে জায়গা করে নেয়। পানামার জয়ে ১৯৮৬ সালের পর বিশ্বকাপের মূলপর্বে খেলার টিকিট পেল না মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। ম্যাচে প্রথমে পিছিয়ে পড়েছিল পানামা। এরপর বিতর্কিত গোলে সমতা আনে পানামা গাব্রিয়েল টোরেস। যদি ম্যাচটি ড্র হতো, তাহলে বিশ্বকাপ খেলার সুযোগ হাতছাড়া হয়ে যেত দেশটির। কিন্তু খেলা শেষ হওয়ার তিন মিনিট আগে রোমান টোরেসের দারুণ হেড স্বপ্নের বিশ্বকাপের টিকিট নিশ্চিত করে নেয় পানামা। এই জয়ে পানামার পয়েন্ট ১০ ম্যাচে ১৩। সমান ১৩ পয়েন্ট নিয়ে গোল পার্থক্যে প্লে-অফ খেলবে হন্ডুরাস। হন্ডুরাস আবার ৩-২ গোলে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দল মেক্সিকোকে হারিয়ে নিশ্চিত করে প্লে-অফ। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ১-২ গোলে ত্রিনিদাদ অ্যান্ড টোবাগোর কাছে হেরে দর্শক হয়ে গেল রাশিয়া বিশ্বকাপের। মধ্য আমেরিকা অঞ্চল থেকে বিশ্বকাপ নিশ্চিত করা তিন দল মেক্সিকো, কোস্টারিকা ও পানামা। বিশ্বকাপ নিশ্চিত করায় ঐতিহাসিক মুহূর্তটিকে উদযাপন করার জন্য একদিনের সরকারি ছুটি ঘোষণা করেন পানামার সরকার প্রধান জুয়ান কার্লোস ভারেলা।

 

এই পাতার আরো খবর
up-arrow