Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : ২ মার্চ, ২০১৭ ১৯:০৯ অনলাইন ভার্সন
​শেবাগকে 'স্বল্পশিক্ষিত' বললেন জাভেদ
অনলাইন ডেস্ক
​শেবাগকে 'স্বল্পশিক্ষিত' বললেন জাভেদ

ট্যুইটারে দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে ট্রল করে সমালোচনার মুখে পড়েছেন বীরেন্দর শেবাগ। গুরমেহের নামের ওই ছাত্রী কারগিল যুদ্ধে মারা যাওয়া এক শহীদের সন্তান।

তিনি ট্যুইট করেছিলেন, ‘পাকিস্তান আমার বাবাকে হত্যা করেনি। হত্যা করেছে যুদ্ধ। ’ ট্যুইটের জবাবে শেবাগ লেখেন, ‘দুটি ৩০০ রানের ইনিংস আমি খেলিনি। এগুলো আমার ব্যাট করেছে। ’ শেবাগের মন্তব্যটি ওই ছাত্রীকে লক্ষ্য করে আরও অনেককে তীর্যক মন্তব্য করতে উস্কে দেয় বলে ধারণা করেন কেউ কেউ। এর জবাবেই শেবাগকে ট্যুইটে 'স্বল্পশিক্ষিত' বলে ক্ষোভ ঝাড়েন হিন্দি গানের গীতিকার জাভেদ আখতার।

শেবাগের পাশাপাশি কুস্তিগির যোগেশ্বর দত্তও ট্রল করেছিলেন গুরমেহেরকে। জাভেদ একহাত নিয়েছেন তাকেও। ট্যুইটারে লিখেছেন, ‘যদি স্বল্পশিক্ষিত খেলোয়াড় অথবা একজন কুস্তিগির কারগিল যুদ্ধে নিহত হওয়া এক শহীদের শান্তিবাদী সন্তানকে কটাক্ষ করে, সেটি মেনে নেওয়া যায়।

কিন্তু শিক্ষিত মানুষগুলোর সমস্যা কী!’

দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্ষমতাসীন বিজেপির ছাত্রসংগঠন অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদের (এবিভিপি) সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে গুরমেহের ওই ট্যুইট করেছিলেন। গুরমেহেরের বাবা মনদীপ সিং ১৯৯৯ সালে কারগিল যুদ্ধে শহীদ হয়েছিলেন।

শেবাগ-যোগেশ্বর দত্ত ছাড়াও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ভেঙ্কাইয়া নাইডু, কিরেন রিজুজু ও অভিনেতা রণদীপ হুদা দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০ বছর বয়সী এই শিক্ষার্থীর সমালোচনা করেন। ধর্ষণের হুমকিও পান গুরমেহের। দিল্লি পুলিশ তার পুলিশি পাহারার ব্যবস্থা করেছে। সূত্র : জি নিউজ।

বিডি-প্রতিদিন/এস আহমেদ

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow