Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১০ আগস্ট, ২০১৮ ০৬:৪৩ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১০ আগস্ট, ২০১৮ ১৩:৩৮
সেই ব্যথা আর সইতে পারছেন না সাকিব
অনলাইন ডেস্ক
সেই ব্যথা আর সইতে পারছেন না সাকিব
ফাইল ছবি

চলতি বছরের জানুয়ারিতে ঘরের মাঠে অনুষ্ঠিত ত্রি‌দেশীয় সিরিজের ফাইনালে ফিল্ডিংয়ের সময় বাঁহাতের কনিষ্ঠ আঙ্গুলে ব্যথা পান বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। সেই ব্যথা আর সইতে পারছেন না তিনি। তাই যতদ্রুত সম্ভব অস্ত্রোপচার করে ব্যথামুক্ত হতে চাইছেন তিনি। 

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর শেষে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে দেশে ফিরে হযরত শাহজহালাল আর্ন্তজাতিক বিমানবন্দরে সাকিব জানান, ‘এটা তো সবাই আমরা জানি এখন যে, সার্জারি করতে হবে। ওটা নিয়ে আলোচনা হচ্ছে কোথায় করলে ভাল হয়, কবে করলে ভাল হয়। তবে আমি মনে করি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব করে ফেলা ভাল।’

তবে সাকিব চাইলেই অস্ত্রোপচার করাতে পারবেন কী না সেটা নিয়ে যথেষ্টই সন্দেহ আছে। কেননা আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হতে যাচ্ছে এশিয়া কাপ। সাকিব যদি এই মুহূর্তে তার কনিষ্ঠায় অস্ত্রোপচার করিয়ে ফেলেন, তাহলে নুন্যতম ২ মাস তাকে মাঠের বাইরে থাকতে হবে। ফলে অবশ্যম্ভাবী ভাবেই এশিয়া কাপ তিনি খেলতে পারবেন না। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের মেডিকেল বিভাগে দেয়া তথ্যসূত্রে এমনটাই জানা গেছে।

এদিকে বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের সাকিব আরও জানান, তিনি পুরো ফিট না হয়ে এশিয়া কাপে খেলতে চান না। সাকিব বলেন, ‘আমি তো তাই মনে করি এমন হওয়া উচিৎ। কারণ চাই না যে ফুল ফিট না থেকে খেলতে। কাজেই সেভাবে যদি চিন্তা করি, তাহলে এশিয়া কাপের আগে অস্ত্রোপচার হবে এটাই নরমাল।’

সাকিব আল হাসানের মতো নির্ভরযোগ্য একজন খেলোয়াড়কে বাদ দিয়ে এশিয়া কাপে টাইগারদের পাঠাতে বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট মনে হয় না সম্মত হবেন। তবে কি হবে বা না হবে সেই বিতর্কে এখনই না যাওয়াই ভাল। বিষয়টি বোর্ড, সাকিব ও বিসিবি মেডিক্যাল বিভাগের আসন্ন সভার দিকে নজর রাখাই শ্রেয়।

 

বিডি প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ সিফাত তাফসীর

আপনার মন্তব্য

up-arrow