Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬

আপডেট : ২ জুন, ২০১৬ ১৬:০৩
বাঘায় আওয়ামী লীগের দুইপক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৫
নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী
বাঘায় আওয়ামী লীগের দুইপক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৫

রাজশাহীর বাঘায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী ও একই দলের বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে তিন নারীসহ ১৫ জন আহত হয়েছেন। আহতদের বাঘা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসা হলে দুইজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে উপজেলার চক রাজাপুর ইউনিয়নের চকরাজপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী আজিজুল আজমের কর্মী সমর্থকরা আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী বাবলু দেওয়ানের নৌকা প্রতীক পুড়িয়ে দেয়। এ ঘটনায় বাবলু দেওয়ানের ছোট ভাই শাহিন দেওয়ান বাদী হয়ে ৪২ জনের নাম উল্লেখ করে ৭০-৮০ জনের নামে মামলা করেন। আজ বৃহস্পতিবার সকালে বাঘা থানা পুলিশ চকরাজাপুর গ্রামে আসামি গ্রেফতারে গেলে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী বাবলু দেওয়ানের কর্মী সমর্থকরা বিদ্রোহী প্রার্থী আজিজুল আজমের সমর্থক বাবু নামের এক কর্মীকে মারপিট করে পুলিশে সোপর্দ করে। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে চলে আসলে আবারও বাবলু দেওয়ানের কর্মী সমর্থকরা চকরাজাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে গিয়ে আজিজুল আজমের সমর্থক ওই বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক  গোলাম মোস্তফাকে মারপিট করে আহত করে। এ খবর আজিজুল আজমের কর্মী সমর্থকদের মাঝে ছড়িয়ে পড়লে শুরু হয় উভয়পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা। এতে বাবলু পক্ষের শাহিন, মোহাম্মদ আলী, শেখ আবদুস সালাম, মিজান, সেলিনা, মিন্টু, গিয়াস, মমতাজ, সুমি এবং আজিজুল আজমের পক্ষে ফজলুল হক সিকদার ও আদিল। এদের মধ্যে আজিজুল সমর্থক ফজলু ও আদিলকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 
    
বাঘা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আলী মাহমুদ জানান, চকরাজাপুর একটি দুর্গম এলাকা। এখানে একই দল সমর্থিত দুইজন প্রার্থী থাকায় উভয়পক্ষের মধ্যে আগে থেকেই বিরোধ চলে আসছিল। তারই প্রেক্ষিতে এ ঘটনা ঘটেছে।

 

বিডি-প্রতিদিন/ ০২ জুন, ২০১৬/ আফরোজ




আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow