Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ৪ জুন, ২০১৬ ১৯:২১
শেরপুরের ২ ইউনিয়নে সংঘর্ষ, পুলিশের গুলি, আহত ১৩
শেরপুর প্রতিনিধি :
শেরপুরের ২ ইউনিয়নে সংঘর্ষ, পুলিশের গুলি, আহত ১৩

শেরপুর জেলার শ্রীবর্দী উপজেলার গোসাইপুর ও রাণীশিমূল ইউনিয়নের দুইটি কেন্দ্রে মেম্বার প্রার্থীদের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে ১৩ জন আহত হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ ৩৫ রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষন করেছে।

শেরপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুল ওয়ারীশ গুলি বর্ষনের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।  

এদিকে ভোটকে ঘিরে বিভিন্ন ভোট কেন্দ্রে জাল ভোটের মহোৎব হয়েছে বলে স্বতন্ত্র ও বিএনপি প্রাথীরা অভিযোগ করেছেন। প্রাথীরা অভিযোগ করে বলেন প্রশাসন ও আইন শৃংখলা বাহিনীর তৎপরতায় বাহিরের পরিবেশ ভাল থাকলেও ভোট কেন্দ্রে নৌকা মার্কায় ভোট নেয়া হয়েছে। সরকার দলীয় প্রার্থীদের নিয়ন্ত্রণাধীন কেন্দ্র  গুলোতে ছোট ছোট বাচ্চাদের  ভোট দিতে ব্যস্ত থাকতে দেখা গেছে।  

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, আজ বেলা সাড়ে ১২ টার দিকে রাণীশিমূল ইউনিয়নের ভায়াডাঙ্গা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ ১০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষন করেন। এসময় ৫ জন আহত হয়।  

অপরদিকে বেলা দেরটার দিকে গোসাইপুর ইউনিয়নের গড়গড়িয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধলে পুলিশ ফাঁকা গুলি ছুড়ে। এসময় ছুটাছুটি করতে গিয়ে ৮ জন আহত হয়। পরে সেখানে ভ্রাম্যমান আদালত ও স্ট্রাইকিংফোর্স গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয়।

৬ষ্ঠ ধাপের নির্বাচনে শেরপুরের শ্রীবর্দী উপজেলার তাতিহাটি, রানীশিমুল, গোসাইপুর ও ভেলুয়াসহ ৪ ইউনিয়নে মোট ২৫ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। এর মধ্যে আওয়ামী লীগের ৪ জন, বিএনপির ৪ জন, ইসলামী শাসনতন্ত্র আন্দোলনের ৩ জন, জাতীয় পার্টির ১ জন এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী রয়েছে ১৩ জন।  

এছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ১৪৮ ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ৬০ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। ওই ৪ ইউনিয়নের মোট ভোটার রয়েছে ৭৭ হাজার ৪৬৪ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৩৮ হাজার ৩৯৯ জন এবং মহিলা ভোটার ৩৯ হাজার ৬৫ জন।  

 

বিডি প্রতিদিন/০৪ জুন ২০১৬/হিমেল-১৩

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow