শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০১:১৯

ঢাবি ক্যাম্পাসে দুই শিক্ষার্থী প্রহৃত

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

ঢাবি ক্যাম্পাসে দুই শিক্ষার্থী প্রহৃত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে এসে প্রহৃত হয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী। গত শুক্রবার ফুলার রোড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। একই ঘটনায় প্রক্টরিয়াল টিমের চার সদস্যও আহত হয়েছেন।

প্রহৃত দুই সাবেক শিক্ষার্থী হলেন রানা নাসির ও বাপ্পি। ভুক্তভোগীদের অভিযোগ, সলিমুল্লাহ মুসলিম (এসএম) হল সংসদের ভিপি এম এম কামাল উদ্দিনের নেতৃত্বে তাদের মারধর করেছে হলটির বেশ কিছু শিক্ষার্থী। সূত্রমতে, ক্ষমতাসীন দলের ছাত্রসংগঠন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথমবর্ষের শিক্ষার্থীদের অনুগত রাখতে ‘গেস্টরুম’ পরিচালনা করে। এতে শিক্ষার্থীদের বেপরোয়া করে তুলতে সন্ধ্যার দিকে ক্যাম্পাসে বের হতে নির্দেশ দেওয়া হয়। বলা হয় ‘ক্যাম্পাসে কাউকে বহিরাগত সন্দেহ হলে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে, আর ঠিকঠাক পরিচয় দিতে না পারলে মারধর করে বের করে দিতে’। জানা গেছে, ছোট ভাই বাপ্পির সঙ্গে কথা বলতে ঢাবির প্রাক্তন শিক্ষার্থী রানা নাসির ক্যাম্পাসে এসেছিলেন। এ সময় ফুলার রোড়ে প্রাক্তন শিক্ষার্থী ফারহানা ও বাপ্পি বসে কথা বলছিলেন। একপর্যায়ে এসএম হলের কিছু শিক্ষার্থী এসে ফারহানা ও বাপ্পিকে তাদের পরিচয় জিজ্ঞেস করে। কিন্তু ‘ঠিকঠাক পরিচয় দিতে না পারায়’ বাপ্পিকে তারা মারধর করে। রানা নাসির তখন এগিয়ে গেলে হামলাকারীরা হলের ভিতরে পালিয়ে যায়। পালানোর সময় এক শিক্ষার্থীর মোবাইল ঘটনাস্থলে পড়ে যায়। পরে ওই শিক্ষার্থী তার মোবাইল ফোন নিতে এলে রানা নাসির তাকে ধরে ফেলেন। ফারহানা জানান, ওই শিক্ষার্থীকে হলে সোপর্দ করার জন্য এসএম হলে নিয়ে যাওয়া হয়। তখন সেখানে হল সংসদের ভিপি কামালের নেতৃত্বে রানা নাসির ও তার ভাই বাপ্পিকে ফের মারধর করা হয়। ঘটনাস্থলে উপস্থিত প্রক্টরিয়াল টিমের সদস্যরাও এ সময় মারধরের শিকার হন। এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. গোলাম রাব্বানী বলেন, কিছু শিক্ষার্থী বহিরাগত ও সিনিয়র শিক্ষার্থীদের শাসন করার চেষ্টা করে। খবর পেয়ে প্রক্টরিয়াল টিম তাদের উদ্ধার করতে গেলে তারাও মারধরের শিকার হয়েছেন। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর