শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০১:৪৮

ধর্ষণের ১০৮ দিন পর থানায় মামলা গ্রহণ

লালমনিরহাট প্রতিনিধি

ধর্ষণের ১০৮ দিন পর থানায় মামলা গ্রহণ

লালমনিরহাটে ৭ম শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের মামলা না নিয়ে ধর্ষকের সঙ্গে বাল্যবিয়ে দেওয়ার ঘটনায় অবশেষে ১০৮ দিন পর গতকাল থানায় মামলা গ্রহণ করা হয়েছে। এদিকে লালমনিরহাটের এএসপি (এ সার্কেল) শফিকুল ইসলামের নেতৃত্বে ওই ঘটনার তদন্ত শুরু হওয়ার পর গত বুধবার অভিযুক্ত ধর্ষক শাহিন আলমকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বাল্যবিয়ে দেওয়ার ঘটনায় অভিযুক্ত লালমনিরহাট সদর থানার এসআই (উপ-পরিদর্শক) মাইনুল ইসলামকে সদর থানা থেকে লালমনিরহাট পুলিশের বি-সার্কেলে বদলি করা হয়েছে। জানা গেছে, লালমনিরহাট সদর উপজেলার পঞ্চগ্রাম ইউনিয়নের সুভার বাড়ি (রামদাস) গ্রামে ধর্ষণ ও বাল্যবিয়ের ঘটনার পর মামলার জন্য ধরনা দেন ধর্ষিতার বাবা। কিন্তু কোনো কিনারা করতে পারেননি। শেষ পর্যন্ত তিনি গত ১৫ সেপ্টেম্বর প্রতিকার চেয়ে পুলিশের রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি, লালমনিরহাটের পুলিশ সুপার ও জেলা প্রশাসক বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। আর এর পরপরই ঘটনাটি ফাঁস হয়ে যায়। মেয়েটির বাবা বলেন, ‘যদি তার দেওয়া অভিযোগ মামলা হিসেবে নেওয়া হতো তাহলে অপরাধী তখনই ধরা পড়ত। মোটা অঙ্কের টাকার বিনিময় এসআই মাইনুল ধর্ষককে মামলা থেকে বাঁচিয়েছিল।’


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর