শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ১১ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১০ অক্টোবর, ২০১৯ ২৩:৩৩

জেলেদের হয়রানির অভিযোগ

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি

জেলেদের হয়রানির অভিযোগ

চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিবগঞ্জে কুমিরাদহ বিল নিয়ে পুলিশের বিরুদ্ধে ইজারা নেওয়া জেলেদের হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। গতকাল দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ শহরের একটি রেস্টুরেন্টে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ-ডিবি একটি পক্ষ নিয়ে জেলেদের হয়রানিসহ ভয়ভীতি দেখাচ্ছে Ñ এই অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে ক্ষতিগ্রস্ত শিবগঞ্জ উপজেলার মনাকষা হাজিপাড়া মৎস্যজীবী সমবায় সমিতির সদস্যরা। সংবাদ সম্মেলনে উল্লেখ করা হয়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দের জন্য ২৫ লাখ টাকা ইজারা মূল্যসহ সরকারি ভ্যাট ও আয়কর বাবদ ৩০ লাখ টাকায় শিবগঞ্জ উপজেলার কুমিরাদহ বিল ইজারা নেয় মনাকষা হাজিপাড়া মৎস্যজীবী সমবায় সমিতির সদস্যরা। এরপর প্রায় দেড়কোটি টাকা খরচ করে ওই বিলে মাছ চাষ শুরু করা হয়। এরই মধ্যে ওই বিলের কিছু অংশের মালিকানা নিয়ে উচ্চ আদালতে মামলা দায়ের করা হলে আদালত ওই সম্পত্তির ওপর স্থিতিবস্থার আদেশ দেন। এর প্রেক্ষিতে সমিতির সদস্যরা ওই মাছ পাহারা দেওয়ার জন্য ব্যবস্থা নেন। কিন্তু জনৈক কাইয়ুম রেজা চৌধুরীর নির্দেশে আলফাজের নেতৃত্বে গত ১৬ সেপ্টেম্বর কুমিরাদহ বিলে গিয়ে ব্যাপক বোমাবাজিসহ সমিতির মাছ ধরা জাল, পাহারার টংঘর ও ২৩টি নৌকা কেড়ে নিয়ে যায় এবং উল্টো সমিতির সদস্যদের নামে মামলা করা হয়। পরের দিন ১৭ সেপ্টেম্বর রাতে আলফাজের নেতৃত্বে পুলিশ আসামি ধরতে গিয়ে তাদের না পেয়ে এক আসামির ৪র্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া ছেলেকে ধরে নির্যাতন চালায়। পরে সমিতির সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকসহ মামলার ১২ আসামিকে ধরে নিয়ে যায় পুলিশ। তারা ২০ দিন জেলে থাকার পর জামিনে ছাড়া পান। এদিকে এ ঘটনার পর ডিবি পুলিশের এসআই বিকাশ প্রায় প্রতিদিন আসামি ধরতে এলাকায় যাচ্ছেন এবং ঘটনা নিষ্পত্তি করার জন্য হুমকি দিচ্ছেন। বিষয়টি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী ও ভূমিমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করা হয় সংবাদ সম্মেলনে। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সমিতির সদস্য ইজাজ আহমেদ। এ সময় সমিতির সভাপতি মোস্তফা, সাধারণ সম্পাদক সেন্টুসহ অন্যান্য নেতা উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মন্তব্য