৭ জুলাই, ২০২৪ ১১:০৬

লুঙ্গি আটকে গেল চাকায়, যুবককে টেনেহিঁচড়ে ১০০ মিটার নিলো ট্রাক

প্রতিবাদে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি

লুঙ্গি আটকে গেল চাকায়, যুবককে টেনেহিঁচড়ে ১০০ মিটার নিলো ট্রাক

প্রতিবাদে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ

বেপরোয়া গতির ট্রাকের চাকায় যুবকের লুঙ্গি আটকে যায়। এরপর তাকে অন্তত ১০০ মিটার রাস্তা টেনে হিঁচড়ে নিয়ে গেছে ওই ট্রাক। পরে জনতার ধাওয়ার মুখে ট্রাক রেখে পালিয়ে যান চালক। গতকাল শনিবার রাত ৯ টার দিকে লক্ষ্মীপুর-ভোলা মজু চৌধুরীর হাট সড়কের হাজির হাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
 
ওই যুবক প্রাণে বাঁচলেও তার অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক। তাকে ঢাকা পাঠানো হয়েছে। আহত যুবকের নাম আবুল কাশেম।
 
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, গেল ১ সপ্তাহে লক্ষ্মীপুর-ভোলা মজু চৌধুরীর হাট মহাসড়কে বেপরোয়া গতির ড্রাম ট্রাকসহ পণ্যবাহী ট্রাক চলাচল করে পাঁচটি দুর্ঘটনা ঘটিয়েছে। সবশেষ শনিবার রাতে ওই সড়কের হাজির হাট এলাকায় রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন ওই যুবক। হঠাৎ একটি ট্রাক তার গা ঘেঁষে যাওয়ার সময় এর চাকায় তার পরনের লুঙ্গি আটকে যায়। এসময় তাকে অন্তত ১০০ মিটার রাস্তা টেনেহিঁচড়ে নিয়ে যায় ট্রাকটি। পরে স্থানীয়রা ট্রাকটিকে ধাওয়া দিলে চালক পালিয়ে যান। এসময় রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে সদর হাসপাতালে নিয়ে যান স্থানীয়রা। হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে ঢাকায় পাঠান।
 
এদিকে ওই যুবকের মৃত্যু হয়েছে এমন খবর ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। মুহূর্তেই আন্দোলনে নামেন এলাকাবাসী। তাদের দাবি শুক্রবার মা হোসনেয়ারা বেগম ও ছেলে (শিশু) আশিককে চাপা দেয় একটি ট্রাক। ঘটনাস্থলেই মা মারা গেলেও শিশুটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। এর আগে অপর একটি ট্রাক মোটরসাইকেলকে চাপা দিলে দুই যুবক পঙ্গু হয়ে এখনো হাসাপাতালে চিকিৎসাধীন। বেপরোয়া গতি ও হেলপাররা গাড়ি চালানোয় প্রতিনিয়ত একের পর এক দুর্ঘটনা ঘটেই চলেছে। এর প্রতিকারে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী সড়ক অবরোধ করেন।
 
পরে সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এসময় থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাইফুদ্দিন আনোয়ার ট্রাক চালকদের সঙ্গে বসে বিষয়টি সমাধানের আশ্বাস দিলে অবরোধ তুলে নেন বিক্ষুব্ধরা।
 
বিডি প্রতিদিন/জুনাইদ

এই রকম আরও টপিক

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর