শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ২৩ মার্চ, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২২ মার্চ, ২০২০ ২৩:২৩

প্রবাসে হোম কোয়ারেন্টাইনে বাংলাদেশি তারকারা

বর্তমানে কভিট-১৯ বা করোনাভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত সারা পৃথিবী। এই সংকটময় মুহূর্তে বাংলাদেশের বাইরে বসবাসরত অনেক তারকা বাংলাদেশসহ বিশ্বের আক্রান্ত মানুষকে সচেতন করতে নানাভাবে প্রচার চালাচ্ছেন। প্রবাসী এই তারকারা হোম কোয়ারেন্টাইনে থেকেও সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে সবাইকে সতর্ক করছেন। এমন কয়েকজন তারকার খবর জানাচ্ছেন- আলাউদ্দিন মাজিদ ও পান্থ আফজাল

প্রবাসে হোম কোয়ারেন্টাইনে বাংলাদেশি তারকারা

আতঙ্কে শাবানা

 

আমেরিকা প্রবাসী ঢালিউডের বিউটি কুইনখ্যাত অভিনেত্রী শাবানা নিউজার্সিতে বসবাস করছেন। মুঠোফোনে তিনি জানান, সেখানকার করোনা পরিস্থিতি নিয়ে চরম উদ্বেগের মধ্যে দিন কাটাচ্ছেন তিনি ও তার পরিবার। স্বামী ওয়াহিদ সাদিকের রিয়েল এস্টেটের ব্যবসা রয়েছে নিউজার্সি ও নিউইয়র্কে। এখন শাবানা, তার স্বামী ও সন্তানরা কেউই বাসা থেকে বের হচ্ছেন না। তারা স্বেচ্ছায় হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন। তিনি বলেন, ‘সৃষ্টিকর্তার কাছে প্রার্থনা করছি তিনি যেন সবাইকে সুস্থ থাকার তৌফিক দেন।’

 

পরিবারসহ শাবানা
 

 

ভালো নেই শাবনূর

অস্ট্রেলিয়ার সিডনিতে বসবাস করছেন ঢালিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাবনূর। মুঠোফোনে তিনি জানান, মা, বোন ঝুমুর, ঝুমুরের স্বামী এবং তার একমাত্র পুত্র আইজানকে নিয়ে সেখানে অনেকটা গৃহবন্দী হয়ে পড়েছেন। তিনি বলেন, ‘সেখানকার করোনা পরিস্থিতি খুবই খারাপ। খুব জরুরি প্রয়োজন না হলে কেউ বাসা থেকে বের হচ্ছে না। আমাদেরও একই অবস্থা। জানি না সৃষ্টিকর্তা ভাগ্যে কি রেখেছেন। বাংলাদেশেও নাকি করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপের দিকে যাচ্ছে। দোয়া করছি সবাই যেন বিপদমুক্ত থাকে।’

 

করোনা নিয়ে বার্তায় টনি ডায়েস

সারা পৃথিবীর আক্রান্ত দেশের মানুষকে সচেতন করতে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী বাংলাদেশের জনপ্রিয় অভিনেতা টনি ডায়েস মার্চের ১৯ তারিখে একটি ভিডিও বার্তা প্রকাশ করেন। করোনাযুদ্ধে জয়ী হতে করণীয় কী, সে বিষয়ে পরামর্শ দিয়ে এই তারকা বলেন, ‘সারা পৃথিবী এই মুহূর্তে একটা অজানা শত্রুর সঙ্গে যুদ্ধ করে যাচ্ছে। যে শত্রুকে আমরা খালি চোখে দেখতে পাই না। আমরা যদি এই যুদ্ধে জয়ী হতে চাই, আমাদের বাড়িতে থাকতে হবে, আমাদের নিজেদের মধ্যে সচেতনতা গড়ে তুলতে হবে। পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকতে হবে। বিশেষজ্ঞের কথা শুনতে হবে।’

 

গৃহবন্দী রোমানা

নীল চোখের মেয়ে রোমানা যুক্তরাষ্ট্রে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন। ২০১৫ সালে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী ব্যবসায়ী এলিন রহমানকে বিয়ে করেন তিনি। এক সন্তান নিয়ে তারা আমেরিকায় অবস্থান করছেন। সবাই ভালো আছেন। কিন্তু করোনার কারণে গৃহবন্দী জীবন কাটাচ্ছেন।

 

করোনা সাসপেক্টেড হিমেল আশরাফ

নির্মাতা হিমেল আশরাফ অনেকদিন হলো নিউইয়র্কে অবস্থান করছেন। সেখান থেকে মার্চের ১৯ তারিখে ফেসবুকে একটি ভিডিও পোস্ট করে বলেন, ‘আমি করোনাভাইরাস সাসপেক্টেড। প্রমাণ করতে পারব না যে, আমি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। গত ১২ দিন বাসায়। তাই এটি নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি করার চেষ্টা করেছি অনলাইনে, ইউটিউবে। এই শুক্রবারের আগের শুক্রবার রাতে ক্লাস শেষ করে বাসায় যখন আসি তখন শরীরে হালকা একটু জ্বর জ্বর ভাব ছিল। শনিবার আমার আরেকটু জ্বর হয়। পরে আমার গলা ব্যথাও বাড়ে। তবে আমি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত কিনা এখনো জানি না।’

 

প্রমিথিউসের বিপ্লব

‘প্রমিথিউস’ ব্যান্ডের ভোকাল বিপ্লব তিন বছরের বেশি সময় ধরে রয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রে। এই সময়টায় পরিবার ও কাজ নিয়ে ব্যস্ত ছিলেন তিনি। ব্যস্ততার কারণে দীর্ঘদিন শ্রোতাদের নতুন কোনো গান উপহার দেননি। বর্তমানে করোনা আতঙ্কে দিন কাটছে তার। ঘর থেকে একদমই বের হচ্ছেন না এই গায়ক।

 

করোনা নিয়ে সতর্ক শ্রাবন্তী

ইপসিতা শবনম শ্রাবন্তী। তিনি পরিবারসহ বসবাস করছেন যুক্তরাষ্ট্রে। দুই সন্তান নিয়ে নিউইয়র্কের কুইন্সে থাকেন শ্রাবন্তী। করোনার কারণে অনেকটাই ঘরে বন্দী তিনি। ফেসবুকে করোনা নিয়ে বিভিন্ন বিষয় শেয়ার ও পোস্ট করছেন। 

 

আশিকুজ্জামান টুলু

নব্বই দশকের ব্যান্ড জগতের অন্যতম নাম আশিকুজ্জামান টুলু। চাইম ব্যান্ডের কারিগর টুলু মাঝে মেয়ে রদিয়াকে নিয়ে বাংলাদেশে এসেছিলেন। তবে গান থেকে দূরে সরে নয়, নিজের মেয়ে রদিয়াকে গানের ভুবনে নিয়ে এসেছেন। তিনি করোনা নিয়ে রয়েছেন আতঙ্কে। করোনা নিয়ে বিভিন্ন সময় ফেসবুকে শেয়ার করছেন। সবাইকে সতর্ক করছেন। তিনি বলেন, ‘সাহস রাখেন মনে। পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সত্যি কথা ‘কুল্লু নাফসিন জাইকাতুল মউত’। তাই সাহস নিয়ে বর্তমান পরিস্থিতি সামাল দিয়ে যান। বেশি হলে আর কি হবে, মইরা যামু, সেটা তো এমনিও যামু, অমনিও যামু। তাই শেষ নিঃশ্বাস পর্যন্ত প্রপারওয়েতে এই অবস্থা ফেস করার চেষ্টা করে যেতে হবে বেঁচে থাকার জন্য।’

 

করোনায় ঘরবন্দী তিন্নি

মডেল ও অভিনেত্রী শ্রাবস্তী দত্ত তিন্নি একমাত্র মেয়ে ওয়ারিশাকে নিয়ে কানাডার মন্ট্রিলে রয়েছেন। সন্তান নিয়ে করোনার কারণে গৃহবন্দী। তিনি সবাইকে সতর্ক ও সচেতন হওয়ারও আহ্বান জানিয়েছেন।

 

আমব্রিন

‘আচ্ছা আমরা কেন Covid-19 কে সিরিয়াসলি নিচ্ছি না, বল তো?- জাতির কাছে প্রশ্ন আমার!’ উপস্থাপিকা আমব্রিন এভাবেই ক্ষোভ ঝাড়লেন ফেসবুকে। তিনি এখন স্বামী ও মেয়েকে নিয়ে টরেন্টোতে বসবাস করছেন। করোনা নিয়ে রয়েছেন চিন্তিত। বাংলাদেশের কোনো খবর বা করোনা নিয়ে কোনো আপডেট পেলেই শেয়ার দিচ্ছেন।

 

কোয়ারেন্টাইনে প্রিয়া ডায়েস-অহনা

টনি ডায়েসের স্ত্রী প্রিয়া ডায়েস দীর্ঘদিন ধরে টনি ও মেয়ে অহনাকে নিয়ে নিউইয়র্কের লং আইল্যান্ডের হিকসভিল শহরে বসবাস করছেন। করোনার কারণে তারাও ঘর থেকে বের হচ্ছেন না।

 

হোম কোয়ারেন্টাইনে রিয়া

মডেল, নৃত্যশিল্পী, উপস্থাপিকা এবং অভিনেত্রী রিয়া। দীর্ঘদিন ধরে রিয়া আমেরিকায় থাকছেন। এক সন্তানের মা তিনি। এই দুঃসময়ে তিনি সচেতনতা অবলম্বন করে ভালো আছেন। বাসায় পরিবারসহ রয়েছেন কোয়ারেন্টাইনে।

 

মোনালিসা

জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী মোনালিসা রয়েছেন আমেরিকার কুইন্সে। করোনা নিয়ে তিনিও বেশ চিন্তিত। প্রতিদিন করোনা নিয়ে নতুন নতুন বিষয় শেয়ার করছেন। সবাইকে সচেতন করছেন। ফেসবুকে বিভিন্ন পোস্ট, ভিডিও শেয়ার করছেন। সেখানকার অবস্থার ছবি দিচ্ছেন ফেসবুকে।

 

সতর্ক বিন্দু

আফসান আরা বিন্দু ২০১৪ সাল থেকে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী। পরিবারসহ সেখানে রয়েছেন। করোনা আতঙ্কে বাসা থেকে বের হচ্ছেন না।

 

রিচি সোলায়মান

আমেরিকা প্রবাসী অভিনেত্রী রিচি সোলায়মান করোনাভাইরাস নিয়ে ভীষণ চিন্তিত। পরিবারের সুরক্ষা চিন্তা করে বাসা থেকে বের হচ্ছেন না। নিয়মিত করোনা নিয়ে ফেসবুকে সতর্কীকরণ পোস্ট দিচ্ছেন।

 

অগ্নিলা

প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল কানাডায় হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন। কোনো কাজ ছাড়া বাসা থেকে বের হচ্ছেন না।


আপনার মন্তব্য