Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৬ জানুয়ারি, ২০১৯ ২২:৪৮

অপ্রিয় কাজগুলো কৌশলে সরকারকে আগেই করতে হবে

জয়শ্রী ভাদুড়ী

অপ্রিয় কাজগুলো কৌশলে সরকারকে আগেই করতে হবে
অধ্যাপক সামছুল হক

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) অধ্যাপক ড. সামছুল হক বলেছেন, অজনপ্রিয় কিংবা বিভিন্ন মহলের চাপ আসতে পারে এ রকম কাজগুলো কৌশলে সরকারকে প্রথমেই করতে হবে। তিনবারের ধারাবাহিক সরকার যদি পুরনো সমস্যাগুলোর সমাধান এবারও করতে না পারে, তাহলে জনগণের কাছে ভুল বার্তা পৌঁছাতে পারে। তাই শুরুতেই সরকারকে গণপরিবহনে বিশৃঙ্খলার মতো সমস্যাগুলোর সমাধান শুরুতেই করতে হবে।

গতকাল বাংলাদেশ প্রতিদিনের সঙ্গে আলাপচারিতায় তিনি বলেন, সরকারকে সমন্বিত উন্নয়ন পরিকল্পনা  নিতে হবে। দীর্ঘ নির্মাণযন্ত্রণা ভোগ করে জনগণকে কিছু সুবিধা দিলে সেটি যদি টেকসই না হয়, তাহলে তা দুঃখজনক। কোটি টাকা খরচ করে ফুটপাথ নির্মাণ করার পর তা হকারদের দখলে চলে যায়। নগরবাসী এই ফুটপাথ দিয়ে হাঁটতে পারে না। নবনির্মিত মহাসড়কে ধীর গতির যানবাহন চলে এবং তৈরি হয় ওভারলোডের সমস্যা। এতে দীর্ঘ যানজটের ভোগান্তিতে পড়তে হয় নগরবাসীকে। অর্থ খরচ করেও যদি জনগণ ফল না পায় তাহলে বুঝতে হবে সিদ্ধান্ত ভুল পথে যাচ্ছে। সড়ক পরিবহন বিশেষজ্ঞ সামছুল হক বলেন, মহাসড়কে আইন থাকলেও প্রয়োগ নেই। সিদ্ধান্ত নিলে বাস্তবায়ন কৌশল নির্ধারণ করতে হবে। রিকশা, নছিমনসহ ধীর গতির গাড়িগুলো মহাসড়কে গতি কমিয়ে দুর্ঘটনার মাত্রা বাড়ায়। এগুলো পুরোপুরি বন্ধ করতে হবে। পাশের দেশ ভারতের কলকাতায় দুই বছর সময় দিয়ে মহাসড়ক থেকে রিকশা পুরোপুরি নিষিদ্ধ করা হয়েছে। পুনর্বাসনের নামে যারা সময়ক্ষেপণ করে, বুঝতে হবে সেখানে কোনো দুরভিসন্ধি আছে। কারণ হকারদের অসংখ্য মার্কেট করে দিলেও তাদের পুনর্বাসনের কিছুই হয়নি। এ জন্য সিদ্ধান্ত নিলে কালক্ষেপণ না করে দ্রুত বাস্তবায়ন করতে হবে। উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে সঠিক সময়ে সিদ্ধান্ত নিতে হবে এবং তা বাস্তবায়ন করতে হবে।


আপনার মন্তব্য