Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper

শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২৩:০২

আফগানদের কাছে আবারও হার

মেজবাহ্-উল-হক

আফগানদের কাছে আবারও হার

আফগান জু জু যেন কিছুতেই টাইগারদের পিছু ছাড়ছে না! টেস্টের পর টি-২০তেও হেরে গেল বাংলাদেশ। ২৫ রানের জয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালের রাস্তা পরিষ্কার করে রাখল আফগানিস্তান। মিরপুর কাল ১৬৫ রানের জয়ের টার্গেটে ব্যাট করতে  নেমে ১৩৯ রানেই গুটিয়ে যায় বাংলাদেশের ইনিংস।

‘আত্মবিশ্বাসের গান’ গেয়ে বাইশগজে নেমেছিলেন ব্যাটসম্যানরা। কিন্তু কোনো লাভ হলো না। ঘুরে ফিরে  সেই একই চিত্র। আগের ম্যাচে ৬০ রানে পড়েছিল ৬ উইকেট, গতকাল মাত্র ৩২ রানেই ৪ উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকে স্বাগতিকরা। প্রথম ম্যাচে মুশফিকুর রহিম রানের খাতাই খুলতে পারেননি। তাই কাল মিস্টার ডিপেন্ডেবলকে নামানো হয়েছিল ওপেনিংয়ে। কিন্তু কালও ৫ রানেই ফিরে যেতে হয়েছে তাকে। আরেক ওপেনার লিটন দাস তো কাল নামের পাশে  কোনো রান যোগ করার আগেই ফিরেছেন। ভরসার প্রতীক সাকিব দারুণ শুরু করেও ১৫ রানের বেশি করতে পারলেন না। সৌম্য সরকারকে ওপেনিং থেকে ৫ নম্বরে নামিয়ে আনা হলেও তার ভাগ্য ফেরাতে পারেননি। আফগান স্পিনার মুজিব উর রহমানের প্রথম বলেই আউট। তবে ৩২ রানে চার উইকেট পতনের পর পঞ্চম উইকেটে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ও সাব্বিরের জুটি বেশ জমে উঠেছিল। জয়ের পথেই হাঁটছিল স্বাগতিকরা। ৪৪ রানের দারুণ এক ইনিংস  খেলার পর মাহমুদুল্লাহর যেন মনে হলো, অনেক হয়েছে! দীর্ঘ সময় উইকেটে থেকেও হাস্যকরভাবে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফিরলেন তিনি। এরপর সাব্বির রহমানও ড্রেসিংরুমে ফিরে যেন ব্যর্থতার ষোলোকলা পূরণ করলেন। আগের ম্যাচের জয়ের দুই নায়ক  মোসাদ্দেক ও আফিফ এ ম্যাচে পারলেন না। রশিদ খানরা যে টি-২০তে কতটা পরিপক্ব তা দেখিয়ে দিয়েছে ব্যাটিংয়ের সময়ই।

মাত্র ৪০ রানে তারা টপ অর্ডারের চার ব্যাটসম্যানকে হারিয়েও শেষ পর্যন্ত ৬ উইকেটে করেছিল ১৬৪ রান। অভিজ্ঞ মোহাম্মদ নবী একাই খেলেছেন হার না মানা ৮৫ রানের ইনিংস। ম্যাচ শেষে অধিনায়ক সাকিব বলেন, আমাদের মধ্যে আত্মবিশ্বাসের অভাব রয়েছে। ঘাটতি রয়েছে মাইন্ডসেটেও। ক্রিকেটারদের নিজেকেই ভাবতে হবে  কেন এমন হচ্ছে? 


আপনার মন্তব্য