শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ১ জানুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ ২৩:৩৪

চীনে প্রথম টিকার অনুমোদন পেল সিনোফার্ম

প্রতিদিন ডেস্ক

শীতকালে বড় আকারে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি নিয়ন্ত্রণে রাষ্ট্র নিয়ন্ত্রিত ওষুধ কোম্পানি সিনোফার্মের অনুমোদিত প্রতিষ্ঠান বেইজিং বায়োলজিক্যাল প্রডাক্ট ইনস্টিটিউটের উৎপাদিত টিকাটির অনুমোদন দিয়েছে চীনা কর্তৃপক্ষ। রয়টার্স, এএফপি।

সিনোফার্মের সহযোগী প্রতিষ্ঠান চায়না ন্যাশনাল বায়োটেক গ্রুপের ইউনিট বেইজিং বায়োলজিক্যাল প্রডাক্ট ইনস্টিটিউট বুধবার জানিয়েছে, অন্তর্বর্তী তথ্য অনুযায়ী এই টিকাটি করোনাভাইরাসজনিত রোগ প্রতিরোধে ৭৯ দশমিক ৩৪ শতাংশ কার্যকর। গতকাল চীনের ন্যাশনাল মেডিকেল প্রডাক্টস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন টিকাটির অনুমোদন দিয়েছে। এর আগে চলতি মাসে বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে সংযুক্ত আরব আমিরাত জনসাধারণের ব্যবহারের জন্য সিনোফার্মের টিকা অনুমোদন করে। কভিড-১৯ টিকার অনুমোদনের ক্ষেত্রে অন্যান্য কয়েকটি দেশ থেকে পিছিয়ে থাকলেও চীন কয়েক মাস ধরে কিছু নাগরিকের ওপর তিনটি ভিন্ন ধরনের টিকা প্রয়োগ করে শেষ পর্যায়ের পরীক্ষা চালাচ্ছে। জুলাইয়ে অপরিহার্য কর্মী ও প্রবল ঝুঁকির মুখে থাকা অন্যদের জন্য একটি জরুরি ব্যবহার কর্মসূচি চালু করেছিল চীন। ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত ওই কর্মসূচিতে ৪৫ লাখেরও বেশি ডোজ ব্যবহার করা হয়েছে। মূলত সিএনবিজির উৎপাদিত দুটি ও সিনোভ্যাক বায়োটেকের একটি পণ্য এ কর্মসূচিতে ব্যবহার করা হয়েছে। প্রসঙ্গত, চীনের অন্তত পাঁচটি টিকা শেষ পর্যায়ের ট্রায়ালে আছে। এগুলোর উৎপাদক সিনোভ্যাক, সিএনবিজি ইউনিটস, ক্যানসিনো বায়োলজিকস এবং চাইনিজ একাডেমি অব সায়েন্সেস।

চীনের টিকা কিনবে পাকিস্তান : চীন থেকে করোনাভাইরাসের টিকা কিনবে পাকিস্তান। দেশটি প্রাথমিকভাবে চীনা প্রতিষ্ঠান সিনোফার্মের ১২ লাখ ডোজ টিকা কিনবে বলে গতকাল সে দেশের একজন মন্ত্রী জানান। করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় দফা ঢেউ চলার মধ্যে এই প্রথম দক্ষিণ এশিয়ার কোনো দেশ এ টিকা কেনার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিল। পাকিস্তানের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক মন্ত্রী চৌধুরী ফাওয়াদ হোসেন টুইটারে লেখেন, ‘চীনের প্রতিষ্ঠান সিনোফার্ম থেকে প্রাথমিকভাবে ১২ লাখ ডোজ টিকা কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মন্ত্রিসভা কমিটি। করোনা মহামারীকালে সম্মুখযোদ্ধার ভূমিকায় অবতীর্ণ হওয়া ব্যক্তিদের আগামী তিন মাসে বিনা মূল্যে এই টিকা দেওয়া হবে।’ উল্লেখ্য, পাকিস্তানে করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় দফা ঢেউ চলছে। গত বুধবার দেশটিতে ৫৮ জন আক্রান্ত ব্যক্তি মারা যান। এ নিয়ে সেখানে মোট মৃত মানুষের সংখ্যা ১০ হাজার ছাড়াল। ওই দিন নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ২ হাজার ৪৭৫ জন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হলেন মোট ৪ লাখ ৭৯ হাজার ৭১৫ জন।

অক্সফোর্ডের টিকার অনুমোদন দিল আর্জেন্টিনা : যুক্তরাজ্যের পর এবার আর্জেন্টিনা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনার টিকার অনুমোদন দিল। বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে যুক্তরাজ্য গত বুধবার অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা সে দেশে ব্যবহারের জন্য অনুমোদন দেয়। যুক্তরাজ্য থেকে এ সিদ্ধান্ত আসার পর একই দিন আর্জেন্টিনা সরকার অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার অনুমোদন দেওয়ার কথা জানায়। বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে আর্জেন্টিনা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার অনুমোদন দিল। আর্জেন্টিনায় এ নিয়ে তৃতীয় কোনো টিকা অনুমোদন পেল। এর আগে দেশটি ফাইজার-বায়োএনটেক ও রাশিয়ার ‘স্পুটনিক-৫’ টিকার অনুমোদন দেয়। আর্জেন্টিনায় এ পর্যন্ত ১৬ লাখ মানুষের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। দেশটিতে করোনায় মারা গেছে প্রায় ৪৩ হাজার মানুষ।

ফাইজারের ভ্যাকসিন নিয়েও করোনা : আমেরিকার ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের এক নার্স ফাইজার কোম্পানির ভ্যাকসিন গ্রহণের এক সপ্তাহ পর করোনা পজিটিভ বলে প্রমাণিত হয়েছেন। মার্কিন টেলিভিশন চ্যানেল এবিসি নিউজ এ খবর দিয়েছে। ম্যাথিউ ডাবলু নামে ৪৫ বছর বয়সী ওই নার্স স্থানীয় দুটি আলাদা হাসপাতালে কাজ করেন। গত ১৮ ডিসেম্বর তিনি ফেসবুকে জানান, তিনি ফাইজার কোম্পানির ভ্যাকসিন গ্রহণ করেছেন। এবিসি টেলিভিশন চ্যানেলকে তিনি জানান, ভ্যাকসিন দেওয়ার পর ওই দিন তার শুধু বাহুতে ব্যথা করেছিল। এ ছাড়া কোনো সমস্যা ছিল না। কিন্তু ছয় দিন পর ক্রিসমাসের প্রাক্কালে তিনি হাসপাতালে কভিড ইউনিটে কাজ করার পর অসুস্থ হয়ে পড়েন। তিনি ঠান্ডায় আক্রান্ত হন এবং তার পেশিগুলো প্রচ- ব্যথায় অবসাদগ্রস্ত হয়ে পড়ছে। এরপর তিনি করোনাভাইরাসের সংক্রমণের বিষয় নিয়ে পরীক্ষা করতে যান এবং ক্রিসমাসের একদিন পর তার দেহে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ে।

অক্সফোর্ডের টিকায় সায় ব্রিটেনের : অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও ব্রিটিশ-সুইডিশ টিকা প্রস্তুতকারী সংস্থা অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি কভিড টিকাকে ছাড়পত্র দিল ব্রিটেন। তাদের পথে হেঁটে এবার ভারতসহ বহু দেশেই ‘চ্যাডক্স১’-কে ছাড়পত্র দেওয়া হতে পারে বলে আভাস মিলেছে। ভারতে টিকা প্রস্তুতকারক সংস্থা সিরাম ইনস্টিটিউট এই ভ্যাকসিন তৈরির দায়িত্বে। ভারতকে তৈরি টিকার ৫০ শতাংশ দেওয়া হবে বলে কথা দিয়েছেন কর্ণধার আদার পুনাওয়ালা। সূত্র : আনন্দবাজার।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর