Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ৮ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৭ মার্চ, ২০১৯ ২২:২০

সুগন্ধময় অন্দর

আবর্জনা থেকে শুরু করে কার্পেট, সবকিছুই হতে পারে দুর্গন্ধের উৎস। রইল দুর্গন্ধ থেকে মুক্তির উপায়...

সাইফ ইমন

সুগন্ধময় অন্দর

অন্দর, নিরাপদ এবং স্বস্তির স্থান। সেই পরিপাটি অন্দর যে কোনো কারণে দুর্গন্ধ ধরা দিতে পারে। আবর্জনা থেকে কার্পেট, সবকিছুই হতে পারে দুর্গন্ধের উৎস। এই দুর্গন্ধ থেকে মুক্তির টিপস জেনে নিন।

 

♦ বাসাবাড়ির আবর্জনার উৎস হলো রান্নাঘর এবং ডাইনিং টেবিল। রান্নাঘরের এই আবর্জনাই অনেক সময় বাসার এসব দুর্গন্ধের জন্য দায়ী। এ থেকে মুক্তি পেতে ময়লা-আবর্জনার সঙ্গে লেবু বা কমলার খোসা ডাস্টবিনে রেখে দিলে বেশ খানিকটা দুর্গন্ধ দূর হবে।

♦ দীর্ঘদিন ডাস্টবিনের তলানিতে ময়লা আটকে থাকলে সেখান থেকে প্রচণ্ড দুর্গন্ধ বেরোয়। তা দূর করার জন্য বেকিং সোডা বা পাউডারের সঙ্গে ভিনেগার ঢেলে দিয়ে তা পরিষ্কার করে নিতে পারেন।

♦ বাজারের বিভন্ন এয়ার ফ্রেশনার নানারকম রাসায়নিক পদার্থ দ্বারা তৈরি, যা অনেকের শারীরিক ক্ষতি করতে পারে। এমতাবস্থায় বিকল্প হিসেবে ফুল ব্যবহার করতে পারেন। নিজের শোয়ার ঘরে মিষ্টি গন্ধযুক্ত ফুল, যেমনÑ রজনীগন্ধা অথবা বেলি রাখুন। দুর্গন্ধ দূর হবে।

♦ কার্পেটে ধুলোর সঙ্গে জলীয় বাষ্পও আটকে থাকে। ফলে দুর্গন্ধ সৃষ্টিকারী জীবাণু অবাধে বিচরণ করে এবং ঘরে দুর্গন্ধ ছড়ায়। কার্পেট নিয়মিত রোদে দিলে দুর্গন্ধ দূর করা সম্ভব।

♦ দুই দিন অন্তর অন্তর কার্পেট ভ্যাকুয়াম ক্লিনার দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। বাজারে কার্পেট পরিষ্কার করার জন্য লিকুইড ক্লিনার কিনতে পাওয়া যায়। তবে দেশের আবহাওয়ার সঙ্গে খাপ খাওয়ানোর জন্য উল বা ভারী কাপড়ের কার্পেট ব্যবহার করার চেয়ে সুতির কার্পেট ভালো।

♦ লাইট বা বাল্বে ভ্যানিলা ফ্রেগরেস ব্যবহার করেও অন্দরের দুর্গন্ধ দূর করা যাবে। অবিশ্বাস্য হলেও, লাইট কিংবা বাল্বে ১-২ ফোঁটা ভ্যানিলার নির্যাস দিয়ে কিছুক্ষণ পর লাইট জ্বালিয়ে দেখুন ঘরের আবহই বদলে যাবে। লাইটের তাপে ভ্যানিলার নির্যাস ঘনীভূত হয়ে যায় এবং সুন্দর গন্ধ ছড়িয়ে পড়ে।

♦ অন্দরে সুগন্ধ ছড়িয়ে দিতে বেছে নিতে পারেন অর্কিড, পাম, হাসনাহেনার মতো প্রাকৃতিক সুগন্ধযুক্ত গাছ। আপনার বাড়ির টবে এসব গাছ রাখতে পারেন। ঘরের দুর্গন্ধ দূর হবে। সৌন্দর্যও বৃদ্ধি পাবে।

♦ ঘর সাজাতে তাজা ফুলের বিকল্প নেই। বসন্তের এ সময় সুগন্ধি ফুলও সাজিয়ে রাখতে পারেন। দুর্গন্ধ দূর হবে।

♦ বাজারে নানা ধরনের মসলা পাওয়া যায়, যা দুর্গন্ধ দূর করে। কমলা ও লেবুর খোসা, বিভিন্ন গাছের শিকড় ও নানারকম ফুল ও পাতা কোনো কাচের বাক্সে রোদে শুকিয়ে রেখে দিলে বাসায়ই এসব মসলার মিশ্রণ বানানো যায়। মেহমান অতিথি এলে সুগন্ধিযুক্ত মোমবাতি জ্বালিয়ে দিতে পারেন। এসব মোমবাতি দেখতে সুন্দর হয় এবং খুব তাড়াতাড়ি দুর্গন্ধ দূর করতে সক্ষম।

♦ অন্দরের সাজগোজের পাশাপাশি অবশ্যই দুর্গন্ধের প্রতি খেয়াল রাখতে হবে যেন বাড়ির হাওয়া থাকে সুগন্ধি ফুলের মতোই তরতাজা এবং প্রাণোবন্ত।


আপনার মন্তব্য