শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৬ জুন, ২০২১ ২৩:৪০

অস্ত্র বিরতি লঙ্ঘন করে গাজায় ইসরায়েলের হামলা

অস্ত্র বিরতি লঙ্ঘন করে গাজায় ইসরায়েলের হামলা
Google News

ইসরায়েল বলছে, গাজা উপত্যকায় হামাসের লক্ষ্যবস্তুর ওপর তারা বিমান হামলা চালিয়েছে। ওই অঞ্চল থেকে আগুনে বেলুন পাঠাতে শুরু করার জবাব হিসেবে বিমান হামলা চালিয়েছে বলে দাবি করেছে ইসরায়েল কর্তৃপক্ষ। গত ২১ মে দুই পক্ষের মধ্যে ১১ দিনের সংঘাতের পর ঘোষণা করা যুদ্ধবিরতির পর এটিই দুই পক্ষের মধ্যে প্রথম সংঘাত। মঙ্গলবার ইহুদি জাতীয়তাবাদীদের পদযাত্রা কর্মসূচির পরই এই ঘটনা ঘটল। এই পদযাত্রা নিয়ে হামাসের হুমকি ছিল। মঙ্গলবার ইহুদি জাতীয়তাবাদীদের এই পদযাত্রা আয়োজন করার উদ্দেশ্যে ইসরায়েলি পুলিশ পূর্ব জেরুজালেমের কিছু এলাকা খালি করে। এ সময় তারা স্টান গ্রেনেড ও রাবার বুলেট ব্যবহার করে। এ সময় ১৭ জন গ্রেফতার হয়। এর পর বিমান হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল। তবে এতে কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

বলে মনে করেন বহু ফিলিস্তিনি। মঙ্গলবার প্রকাশিত জনমত জরিপে এমন তথ্য মিলেছে। অন্যদিকে কমেছে ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসের নেতৃত্বাধীন ফাতাহর জনপ্রিয়তা।

রামাল্লাভিত্তিক প্যালেস্টিনিয়ান সেন্টার ফর পলিসি অ্যান্ড সার্ভে রিসার্চ এ জরিপ চালায়। ৯ জুন থেকে ১২ জুনের মধ্যে এ জরিপ চালানো হয়। এতে অংশ নেন প্রায় ১২০০ ফিলিস্তিনি। জরিপে অংশ নেওয়া ৭২ শতাংশ ফিলিস্তিনি মনে করেন, হামাস ইসরায়েলে রকেট হামলা চালিয়েছে জেরুজালেম এবং আল-আকসা মসজিদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে। ৯ শতাংশ মনে করেন, ফিলিস্তিনের সাধারণ নির্বাচন বাতিল হওয়ার কারণে এ সংঘাত হয়।

খবরে বলা হয়, অধিকাংশ ফিলিস্তিনি বিশ্বাস করতে শুরু করেছেন যে, হামাস ফিলিস্তিনিদের প্রতিনিধিত্ব করা এবং নেতৃত্ব দেওয়ার ক্ষেত্রে বেশি যোগ্য। অন্যদিকে সামান্য অংশ বিশ্বাস করেন, ফিলিস্তিনিদের নেতৃত্ব দেওয়ার যোগ্য হচ্ছে ফাতাহ।