শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ২১ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২০ মে, ২০২১ ২৩:৩১

নারী উদ্যোক্তাদের সাপোর্টের বিষয়টি থাকতে হবে

আবিদা সুলতানা মুক্তি

নারী উদ্যোক্তাদের সাপোর্টের বিষয়টি থাকতে হবে
Google News

যশোর উইমেন চেম্বার অব কমার্সের সাধারণ সম্পাদক আবিদা সুলতানা মুক্তি বলেন, করোনায় গত দুই বছরে প্রতিটি সেক্টরই ক্ষতির শিকার হয়েছে। নারী উদ্যোক্তারাও মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। তাই ক্ষতিগ্রস্ত নারী উদ্যোক্তারা যাতে আগের অবস্থায় ফিরে যেতে পারেন সে ব্যাপারে এবারের বাজেটে সুনির্দিষ্ট ঘোষণা থাকতে হবে। একই সঙ্গে নতুন নতুন নারী উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও তাদের সব ধরনের সহায়তা প্রদানের বিষয়টিও বাজেটে থাকতে হবে। বাংলাদেশ প্রতিদিনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন। যশোর শহরের ‘বাংলা মোটরস’ নামের একটি ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারী শহরের সিটি কলেজ মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক আবিদা সুলতানা ২০২০ সালে সেরা উদ্যোক্তা হিসেবে পুরস্কৃত। নিজের উদাহরণ টেনে তিনি জানান, ব্যাংক থেকে সাপোর্ট নিয়েই তিনি সেরা উদ্যোক্তা হয়েছিলেন। কিন্তু এরপরই করোনার দাপট শুরু হয়ে যায়। টায়ার, টিউব ও ব্যাটারি উৎপাদনকারী অনেকগুলো কোম্পানির ডিলার তিনি। এসব কোম্পানি ক্রেডিটে পণ্য দিত। কিন্ত করোনা পরিস্থিতি শুরু হওয়ার পর তারা ক্রেডিটে পণ্য দেওয়া বন্ধ করে দেয়। অন্যদিকে করোনা পরিস্থিতির পর ব্যাংকের সাপোর্টও বন্ধ হয়ে যায়। কিন্তু ঋণের সুদ ঠিকই দিয়ে যেতে হয়। করোনা পরিস্থিতিতে যশোরে নারী উদ্যোক্তারা কোনো ঋণ বা প্রণোদনা কিছুই পাননি। এ অবস্থায় তাদের পুঁজি ক্রমশ শেষ হয়ে যাচ্ছে। যশোরের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও নারী উদ্যোক্তা নেতা আবিদা সুলতানা বলেন, বাংলাদেশের অন্য অনেক জেলার তুলনায় যশোরে নারী উদ্যোক্তার সংখ্যা বেশি। এসব নারী উদ্যোক্তা মেধা ও পরিশ্রম দিয়ে তিল তিল করে তাদের ব্যবসা দাঁড় করিয়েছেন। এখানকার বেশির ভাগ নারী উদ্যোক্তা পার্লার ও হ্যান্ডিক্রাফটস নিয়ে কাজ করেন। অন্য সেক্টরগুলোতেও নারীরা এগিয়ে আসছেন। এসব উদ্যোক্তা একটু সাপোর্ট পেলেই অনেক দূর এগিয়ে যেতে পারবেন। পুরনো উদ্যোক্তাদের জন্য এই মুহুর্তে ব্যাংকিং সাপোর্টটা বেশি প্রয়োজন। আর নতুন উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও তাদের নানা রকম প্রশিক্ষণ ও সহায়তার বিষয়টি নিশ্চিত করতে পারলে নারী উদ্যোক্তার সংখ্যা আরও অনেক বাড়বে। বাজেটে এর জন্য আলাদা বরাদ্দ থাকতে হবে এবং খেয়াল রাখতে হবে যে, এসব বরাদ্দ যেন প্রকৃত নারী উদ্যোক্তাদেরই কাজে লাগে, বারো ভূতে না খেয়ে যায়।

এই বিভাগের আরও খবর