শিরোনাম
প্রকাশ : ২০ জুন, ২০১৯ ১৯:১৮

'জনগণকে সেবা দিতে হবে, না পারলে দায়িত্ব থেকে সরে যান'

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া

'জনগণকে সেবা দিতে হবে, না পারলে দায়িত্ব থেকে সরে যান'

বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলায় অবস্থিত বিভিন্ন সরকারি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের দুর্নীতির চিত্র নিয়ে গণশুনানির আয়োজন করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলা সদরের শহীদ মুক্তিযোদ্ধা হাফিজার রহমান মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত গণশুনানিতে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার প্রায় ৩৫ জন সাধারণ মানুষ অংশ নেন।

গণশুনানিতে অংশ নিয়ে শিবগঞ্জ উপজেলার ময়দানহাট্টা ইউনিয়নের শিবপুর গ্রামের ৮২ বছরের মানসিক প্রতিবন্ধী অষ্টবালা বয়স্ক ভাতা কার্ড করার পর মাত্র তিন মাসের টাকা ভাতা পেয়েছেন। বাকী নয় মাস ধরে কোনো ভাতার টাকা পাচ্ছেন না। তার জামাই বিশ্বনাথ দাস বৃহস্পতিবার দুপুরে তার শ্বাশুড়িকে নিয়ে গণশুনানিতে অংশ নিয়ে এ অভিযোগ করেন।

অভিযোগ প্রসঙ্গে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা সামিউল ইসলাম বলেন, এই কর্মস্থলে নতুন এসেছি, বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে গত নয় মাস ধরে ওই ইউনিয়নে বরাদ্দ বন্ধ ছিল। আমি আসার পর তা চালু করে সব ভাতা প্রদানের ব্যবস্থা করেছি।

এ প্রসঙ্গে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) মহাপরিচালক (ডিজি) সারোয়ার মাহমুদ ভাতা না পাবার বিষয়টি তদন্ত করে সাত দিনের মধ্যে জানানোর জন্য বগুড়ার উপ পরিচালককে (ডিডি) নির্দেশ দিয়ে বলেন, নয় মাস ধরে ভাতা না পাবার জন্য কার গাফলতি এবং অবহেলা আছে কী- না তা তদন্ত করে দেখার নির্দেশ দেন।

গণশুনানি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) মহাপরিচালক সারোয়ার মাহমুদ। তিনি বলেন, এ দেশের জনগণের সেবক আমরা। তাদের প্রতি আমাদের দায়বদ্ধতা আছে। তাদের কথা শুনতে হবে। তাদের কাজ করে দিতে হবে। না পারলে বলতে হবে কেন পারলাম না।

অন্যান্যর মধ্যে বক্তব্য রাখেন, দুদকের রাজশাহী বিভাগীয় পরিচালক মোরশেদ আলম, বগুড়ার জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহাম্মদ, বগুড়ার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা বিপিএম বার, শিবগঞ্জ উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি রাম নারায়ন কানু। 

উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান ফিরোজ আহম্মেদ রিজু, পৌর মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান রিজ্জাকুল ইসলাম রাজু, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আজিজুল হক, সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তা, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মহিদুল ইসলাম, আব্দুল হাই প্রমুখ। অনুষ্ঠানে সরকারি সকল দপ্তরের প্রধানরা উপস্থিত ছিলেন।

বিডি-প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন


আপনার মন্তব্য