২৯ জানুয়ারি, ২০২২ ১৬:৩১

খাবারের হোটেলে মিলল স্কুলছাত্রের গলাকাটা লাশ

দিনাজপুর প্রতিনিধি

খাবারের হোটেলে মিলল স্কুলছাত্রের গলাকাটা লাশ

প্রতীকী ছবি

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে রিসান হোসেন নামের এক স্কুলছাত্রের পায়ের রগ ও গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার ঘোড়াঘাটের কশিগাড়ী গ্রামের রাণীগঞ্জ এলাকায় পাঁচ মাথা মোড়ের গো-হাটির পাশের একটি খাবার হোটেলের মেঝে থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

নিহত রিসান হোসেন ওরফে জিসান (১৫) ঘোড়াঘাট উপজেলার কশিগাড়ি পাচঁমাথা এলাকার লিটন মন্ডল ছেলে এবং সে স্থানীয় রাণীগঞ্জ হাইস্কুলের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল। 

পুলিশের ধারণা, রাতের কোনো একসময় তার পায়ের রগ ও গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।  

স্থানীয়রা ও পুলিশ জানায়, রিসান হোসেন ঘোড়াঘাটের রাণীগঞ্জ বাজারের একটি খাবার হোটেলে কাজ করত। হোটেলটি সপ্তাহে দুদিন হাটবারের দিন খোলা থাকে। শুক্রবার রাতে দোকানের কাজ শেষে সে বাসায় ফেরেনি। সকালে ওই দোকানের মেঝেতে তার গলাগাটা এবং ডান পায়ের রগকাটা রক্তাক্ত মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। পরে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে। শনিবার সকালে এলাকাবাসীর খবরে সেখানে গিয়ে ছেলের গলাকাটা মরদেহ শনাক্ত করেন তার মা অমিছা বেগম। 

এই খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে ঘোড়াঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু হাসান কবির জানান, স্থানীয়দের দেওয়া খবরে রানীগঞ্জ বাজারের ওই খাবারের হোটেলের মেঝে থেকে রিসানের পায়ের রগ ও গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।
 
তিনি জানান, পূর্ব শত্রুতার জেরে এ হত্যাকাণ্ড হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে ইতোমধ্যে সিআইডি ক্রাইম সিন ইউনিটকে জানানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত ও অধিকতর তদন্তেই বেরিয়ে আসবে হত্যাকাণ্ডের কারণ। ক্রাইম সিন ইউনিট এসে আলামত সংগ্রহের পর লাশ ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর মর্গে পাঠানো হবে। 

বিডি প্রতিদিন/জুনাইদ আহমেদ

 

 

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর