Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৬ মে, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৫ মে, ২০১৯ ২৩:২৬

বিতর্কিতদের বাদ দিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

মধ্যরাতে সংবাদ সম্মেলন, ২৪ ঘণ্টা সময় নিলেন শোভন-রাব্বানী ছাত্রলীগে ক্ষোভ-বিক্ষোভ অব্যাহত

নিজস্ব ও বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

বিতর্কিতদের বাদ দিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

ছাত্রলীগের সদ্য ঘোষিত ৩০১ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে ঠাঁই পাওয়া বিতর্কিত নেতাদের বাদ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল দুপুরে গণভবনে ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীকে ডেকে তিনি এ নির্দেশ দেন। এ সময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, উপ-দফতর সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী বিপ্লব বড়ুয়া এবং কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য এস এম কামাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন। এদিকে সদ্য ঘোষিত ছাত্রলীগের পূণার্ঙ্গ কমিটিকে ‘বিতর্কিত’ আখ্যা দিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ক্ষোভ বিক্ষোভ অব্যাহত রেখেছে পদবঞ্চিত নেতারা। মধুর ক্যান্টিনে হামলার শিকার হওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে পদবঞ্চিত নেতা-কর্মীরা। গতকাল দুপুরে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে এ মানববন্ধন করেছেন তারা। এ সময় পদবঞ্চিত ও পদোন্নতি না পাওয়া নেতা-কর্মীরা অবিলম্বে নতুন কমিটি বিলুপ্ত করে ‘যোগ্যদের স্থান দিয়ে’ পুনরায় কমিটি দেওয়ার দাবি জানান। এদিকে গতকাল ছাত্রলীগের নতুন কমিটির নেতাদের নিয়ে দুপুরে ধানমন্ডিতে জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদনের কথা থাকলেও তা স্থগিত করা হয়। গণভবন সূত্রে জানা গেছে, শোভন-রাব্বানীর সঙ্গে কথা বলার আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটির দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা জাহাঙ্গীর কবির নানকের সঙ্গে একান্তে আলাপ করেন। এ সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ তালিকায় থাকা ১২/১৫ জন বিতর্কিত নেতার নাম কালি দিয়ে চিহ্নিত করে তাদের বাদ দেওয়ার নির্দেশ দেন। তালিকায় যদি আরও কোনো বিতর্কিত নেতা থাকেন খোঁজ-খবর নিয়ে তাদেরও বাদ দিতে ছাত্রলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী।

২৪ ঘণ্টা সময় : ছাত্রলীগের সদ্য ঘোষিত পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে পদপ্রাপ্ত ১৭ জনের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ পেয়েছে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ। অভিযোগের সত্যতা যাচাই-বাছাই করতে ২৪ ঘণ্টা সময় চেয়ে নিলেন ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী। গতকাল রাত ১২ টায় রাজধানীর ধানমন্ডির আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তারা এ কথা জানান। তারা উল্লেখ করেন, তানজীর ভুইয়া, সুখরঞ্জন ঘোষ, (বয়স) আরেফিন সিদ্দিক সুজন (মাদক ব্যবসা), আতিকুর রহমান চয়ন, বরকত হোসেন, শাহরিয়ার হোসেন, মাহমুদুল হাসান তুষার, আমিনুল ইসলাম বুলবুল, আহসান হাবীব, সাদিক খান, সোহানী খান তিথী, আফরিন চৌধুরী, মুনমুন নাহার বৈশাখীসহ আরও কয়েকজনের বিরুদ্ধে বিবাহিত, মাদকসেবী, মাদক মামলা, সাংগঠনিক শৃঙ্খলা ভঙ্গ, চাকরি নিয়ে অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে।

গোলাম রাব্বানী বলেন, ছাত্রলীগের ঘোষিত কমিটির ১৭ জনের বিরুদ্ধে গঠনতন্ত্রবিরোধী অভিযোগ পাওয়া গেছে। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে যাচাইবাছাই করে চূড়ান্ত করা কবে। যদি তারা অভিযোগ থেকে মুক্তি পান তাহলে তাদের পদ থাকবে। অন্যথায় তাদের পদগুলো শূন্য ঘোষণা করে যোগ্যদের সেখানে স্থান দেওয়া হবে। তিনি আরো বলেন, কমিটি গঠনে বিলম্ব হয়েছে, কারণ সদ্য সাবেক প্রেসিডেন্ট-সেক্রেটারি আমাদের সহযোগিতা করেননি। যেটা ছাত্রলীগের কমিটি গঠনে আওয়ামী লীগের দায়িত্বপ্রাপ্ত আওয়ামী লীগের জাতীয় নেতারাও জানেন।

ছাত্রলীগের শৃঙ্খলাপরিপন্থী কাজ যারা করেছে তাদের বহিষ্কার করা হবে জানিয়ে সভাপতি শোভন বলেন, ছাত্রলীগের কমিটি হওয়ার পর একটি মহল বিভিন্ন মাধ্যমের যে আক্রমণাতœক ভাষায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তা সংগঠনের শৃঙ্খলাপরিপন্থী। ক্ষোভ প্রকাশের জন্য দলীয় ফোরাম রয়েছে। যারা শৃঙ্খলাপরিপন্থী কাজের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তাদেরকেও খুঁজে বের করে বহিস্কার করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন ঢাবি শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস, সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেনসহ আরো অনেকে


আপনার মন্তব্য