Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper

শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ আগস্ট, ২০১৯ ২৩:০৬

সরকারি প্রতিষ্ঠানে পরিচ্ছন্নতায় জোর

জয়শ্রী ভাদুড়ী

সরকারি প্রতিষ্ঠানে পরিচ্ছন্নতায় জোর
রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ডেঙ্গু রোগী -বাংলাদেশ প্রতিদিন

এডিস মশার লার্ভা নির্মূলে বাসাবাড়ি ও ব্যক্তিমালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানে পরিচ্ছন্নতার তাগিদ থাকলেও সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোর দিকে নজর নেই কারও। এর মধ্যে রয়েছে হাসপাতাল, থানার সামনের পরিত্যক্ত গাড়ি, রেলওয়ের বিভিন্ন পরিত্যক্ত বগি ও মালামাল। এ ছাড়া বাস ডিপো, বাস টার্মিনালও রয়েছে। এসব জায়গায় বেড়ে ওঠা এডিস মশা ঝুঁকি বাড়াচ্ছে ডেঙ্গুজ্বরের। তাই সরকারি প্রতিষ্ঠান পরিচ্ছন্নতায় প্রতিষ্ঠানপ্রধানদের সঙ্গে মতবিনিময়ের উদ্যোগ নিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম।

ডিএনসিসির প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোমিনুর রহমান মামুন বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, ‘ডেঙ্গু প্রতিরোধে সচেতনতামূলক কার্যক্রমে ব্যক্তিগতভাবে যতটা সাড়া পাচ্ছি, প্রাতিষ্ঠানিকভাবে অতটা পাচ্ছি না। সরকারি বেশ কিছু প্রতিষ্ঠানে আমরা জমাটবাঁধা পানিতে মশার লার্ভা পেয়েছি। তাদের কর্মস্থল পরিষ্কার করার জন্য বলা হয়েছে। এর পরও যদি আবার পানি জমে তাহলে আমাদের ব্যবস্থা নিতে হবে।’ তিনি আরও বলেন, ‘সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোয় সচেতনতা বৃদ্ধিতে ২০ আগস্ট বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রধানদের সঙ্গে মতবিনিময় করবেন ডিএনসিসি মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম। প্রতিটি প্রতিষ্ঠান যদি তাদের কর্মীদের নিয়ে নিজেদের কর্মস্থল পরিচ্ছন্ন করে তাহলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যাবে।’

স্বাস্থ্য অধিদফতরের জরিপেও উঠে এসেছে সরকারি মালিকানাধীন এসব প্রতিষ্ঠানে এডিস মশার বংশবিস্তারের চিত্র। গত ৩১ জুলাই থেকে ৪ আগস্ট পর্যন্ত রোগনিয়ন্ত্রণ শাখা ঢাকার ১৪টি এলাকায় এ জরিপ করেছে। তারা বিভিন্ন পাত্রে জমে থাকা পানিতে এডিস মশার লার্ভা পরীক্ষা করে দেখেছে। এর মধ্যে ঝুঁকিপূর্ণ পর্যায়ে লার্ভার উপস্থিতি পাওয়া গেছে কমলাপুর বিআরটিসি বাস ডিপো, কমলাপুর রেলওয়ে কলোনি, মহাখালী বাস টার্মিনাল, শাহজাহানপুর বস্তি, মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, গাবতলী বাস টার্মিনাল, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, মিরপুর-১২-এর বিআরটিসি বাস ডিপো। এ ছাড়া স্বচ্ছ পানি জমে থাকছে থানার সামনে ফেলে রাখা পরিত্যক্ত গাড়িতে। বৃষ্টির পানি জমে এডিস মশার বংশবিস্তারের উপযুক্ত ক্ষেত্র হয়ে উঠছে এসব গাড়ি। রাজধানীর বনানী থানার পাশে দীর্ঘদিন ধরে পড়ে রয়েছে দুর্ঘটনাকবলিত একটি প্রাইভেট কার। গাড়িটির গ্লাস ভেঙে গেছে, খোয়া গেছে অনেক যন্ত্রপাতিও। গাছের ছায়ায় এ গাড়িতে বৃষ্টি হলেই জমছে পানি। এর মধ্যে ভাসছে মশার লার্ভা। একই অবস্থা উত্তরা পূর্ব থানার পাশেও। ভাঙাচোরা মাইক্রোবাসের পরিত্যক্ত টায়ারে রয়েছে মশার লার্ভা। জমে থাকা পানিতে লার্ভা ফুটে বের হয়েছে অসংখ্য মশার ছানাপোনা। একই পরিস্থিতি রাজধানীর তুরাগ থানার সামনেও। দীর্ঘদিন ধরে ফেলে রাখা পিকআপ ভ্যানে পানি জমে আছে। পাশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে অসংখ্য ভাঙা গাড়ি, পরিত্যক্ত টায়ারসহ বিভিন্ন যন্ত্রাংশ। কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে গিয়ে দেখা যায়, দীর্ঘদিন ধরে ফেলে রাখা ট্রেনের বগি, পাতসহ বিভিন্ন যন্ত্রাংশে জমছে বৃষ্টির পানি। মাঝে মাঝে ফগিং মেশিন দিয়ে ওষুধ ছিটানো হলেও জমা পানি ফেলে না দেওয়ায় নিরাপদে বেড়ে উঠছে মশা। গাবতলী বাস টার্মিনালের কার্নিশে জমে থাকছে বৃষ্টির পানি। এ ছাড়া পুরনো গাড়ি ও পরিত্যক্ত টায়ার তো রয়েছেই। ২০-৩০ শতাংশ এডিস মশার লার্ভার উৎস পরিত্যক্ত টায়ার। সরকারি এসব প্রতিষ্ঠানে পরিচ্ছন্নতায় কোনো তদারকি না থাকায় বাড়ছে ডেঙ্গুঝুঁকি। এ ছাড়া সরকারি প্রতিষ্ঠানের ছাদের জমে থাকা বৃষ্টির পানিও হয়ে উঠছে এডিস মশার বংশবিস্তারের উপযুক্ত জায়গা। রাজধানীর খিলগাঁও তালতলা সোসাইটি পানির পাম্পের জন্য নির্মিত এক তলা ভবনের ছাদে দীর্ঘদিন জমে থাকছে পানি। এ এলাকার ঘরে ঘরে ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত রোগী থাকলেও টনক নড়েনি কর্তৃপক্ষের। ওয়াসার এই পানির পাম্পের ছাদের স্বচ্ছ পানিতে লার্ভা ছাড়ছে এডিস মশা। এ ছাড়া নির্মাণাধীন ভবনের মেঝে, চৌবাচ্চার জমে থাকা পানিতে নির্বিঘেœ বেড়ে উঠছে এডিস মশা। গতকাল আনসার ক্যাম্পের পাশের একটি নির্মাণাধীন হাউজিং কমপ্লেক্সের চৌবাচ্চা, পুরনো পানির ট্যাঙ্কিতে এডিস মশার লার্ভা দেখা যায়। তবে নির্মাণাধীন ভবন কিংবা বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালালেও সরকারি প্রতিষ্ঠানে কোনো অভিযান নেই সিটি করপোরেশনের। তাই কোনো বাধাবিপত্তি ছাড়াই নিরাপদে বেড়ে উঠছে মশা।

গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত ১৪৬০ জন : স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমারজেন্সি অপারেশন্স সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের দেওয়া তথ্যানুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৪৬০ জন। গতকাল সারা দেশে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন তিনজন। ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে মনোয়ারা বেগম (৪৫) নামে এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে। তার বাড়ি কিশোরগঞ্জে। ১০ দিন আগে তিনি ডেঙ্গু আক্রান্ত হন। মিটফোর্ড হাসপাতালে গত শুক্রবার ভোররাতে লিপি রানী দাস (২২) নামে এক নারী মারা গেছেন। তার বাড়ি পটুয়াখালীর গলাচিপায়। মাগুরায় সুমন মোল্লা (১৭) নামে এক কলেজছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সকাল ১০টার দিকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের মধ্যে রাজধানীর হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৬২১ জন এবং ঢাকা শহর বাদে সারা দেশে আক্রান্ত হয়েছেন ৮৩৯ জন।

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে আগামী সাত দিন চ্যালেঞ্জিং : স্বাস্থ্য অধিদফতরের রোগ নিয়ন্ত্রণ শাখার পরিচালক ডা. সানিয়া তহমিনা বলেছেন, ঈদের ছুটি শেষে সবাই ঢাকায় ফিরতে শুরু করেছে। তাই ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে আগামী ৭ দিন আমাদের জন্য খুবই চ্যালেঞ্জিং। গতকাল ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরে এক বৈঠক শেষে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ।


আপনার মন্তব্য