শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ২০:৫৫

বাগমারায় গৃহবধূকে ধর্ষণচেষ্টা, এনজিও কর্মীকে গণপিটুনি

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী

বাগমারায় গৃহবধূকে ধর্ষণচেষ্টা, এনজিও কর্মীকে গণপিটুনি
প্রতীকী ছবি
রাজশাহীর বাগমারায় এক প্রবাসীর স্ত্রীকে (৩৮) ধর্ষণের চেষ্টা করায় রুরাল রিকনস্ট্রাকশন ফাউন্ডেশন (আরআরএফ) নামে এক এনজিও কর্মীকে আটক করে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে দিয়েছে এলাকাবাসী। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার বড়বিহানালী ইউনিয়নের বেড়াবাড়ি গ্রামে। এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।
 
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আরআএফ এনজিও’র মাঠ কর্মী পারভেজ আহম্মেদ (৪৫) বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার বড়বিহানালী ইউনিয়নের বেড়াবাড়ি গ্রামে কিস্তির টাকা আদায় করতে যায়। সবাই কিস্তির টাকা দিয়ে গেলেও প্রবাসীর স্ত্রী টাকা দিতে কেন্দ্রে আসেননি। সময় শেষ হওয়ায় মাঠ কর্মী পারভেজ আহম্মেদ কিস্তির টাকা নিতে প্রবাসীর স্ত্রীর বাড়িতে যান। প্রবাসীর বাড়িতে তার স্ত্রী দুপুরের রান্নার কাজ করছিলেন। পারভেজ আহম্মেদ বাড়িতে প্রবেশ করে প্রবাসীর স্ত্রীর কাছে কিস্তির টাকা চান। ওই সময় প্রবাসীর স্ত্রী মাঠকর্মী পারভেজ আহম্মেদকে বসার ব্যবস্থার জন্য চেয়ার এগিয়ে দেন। সুযোগ বুঝে পারভেজ আহম্মেদ প্রবাসীর স্ত্রীকে জড়িয়ে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। প্রবাসীর স্ত্রী কৌশলে তার কাছ থেকে বাড়ির বাইরে এসে লোকজনকে বিষয়টি জানান। 
 
স্থানীয় লোকজন প্রবাসীর বাড়িতে ঢুকে মাঠকর্মী পারভেজ আহম্মেদকে ধরে গণধোলাই দিয়ে আটকে রাখে। খবর পেয়ে বাগমারা থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে আটক এনজিও কর্মী পারভেজ আহম্মেদকে উদ্ধার করে বাগমারা থানায় নিয়ে যায়।
 
বাগমারা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান বলেন, এনজিও কর্মীকে আটক রাখার খবর পেয়ে পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়েছিল। তারা এনজিও কর্মীকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।
 
বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম

আপনার মন্তব্য