শিরোনাম
প্রকাশ : ২৮ মে, ২০২০ ২০:৫৫
আপডেট : ২৮ মে, ২০২০ ২২:০০

রাজশাহীতে বাথরুমের হাউজে পড়ে মা ও ছেলের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী

রাজশাহীতে বাথরুমের হাউজে পড়ে মা ও ছেলের মৃত্যু

রাজশাহীর দূর্গাপুর উপজেলার কয়ামাজমপুর গ্রামে বাথরুমের হাউজ থেকে মোবাইল উঠাতে গিয়ে হাউজের মধ্য পড়ে মো. রাসেল (১৬) নামের এক ছাত্র ও তার মা ফিরোজা বেগমের (৩৮) মৃত্যু হয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে উপজেলার কয়ামাজমপুর গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে। 

নিহত দুইজন কয়ামাজমপুর গ্রামের চায়ের দোকানদার মো কুদ্দুস পাইকের স্ত্রী ও ছেলে। নিহত রাসেল কয়ামাজমপুর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে। আগামী ৩১ তারিখ তার ফলাফল প্রকাশ হওয়ার কথা।

স্থানীয়রা জানান, সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে কয়ামাজমপুর গ্রামের চায়ের দোকানদার মো. কুদ্দুস পাইকের ছেলে মো. রাসেল তাদের পারিবারিক বাথরুমে যায়। এসময় বাথরুমের হাউজে রাসেলের স্মার্ট ফোনটি পড়ে যায়। পরে বাথরুমের প্যান সরিয়ে হাউজ থেকে মোবাইলটি উদ্ধার করতে গিয়ে হাউজের মধ্যে পড়ে যায়। পড়ে যাওয়ার সময় তার মাকে চিৎকার করে ডাক দিলে তার মা ফিরোজা বেগম (৩৮) তার ছেলে রাসেলকে উদ্ধার করতে গিয়ে সেও হাউজের মধ্যে পড়ে যায়। এতে মা ও ছেলের মৃত্যু হয়। পরে স্থানীয়রা বাথরুমের হাউজ থেকে মা ও ছেলের মরদেহ উদ্ধার করে।
 
দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খুরশিদা বানু কণা জানান, ঘটনাটি শোনার পর পুলিশ পাঠিয়ে মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর