শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২১ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২০ এপ্রিল, ২০২১ ২৩:১০

সংক্ষিপ্ত

Google News

বন্দর নথিতে বঙ্গবন্ধুর ছবি কাটাকাটি

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের ‘সরকারি নথির’ চিঠিতে মুজিব শতবর্ষ লোগোতে কলম দিয়ে কাটিকাটি নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে। কর্তৃপক্ষের ট্রাফিক বিভাগে এ ঘটনা ঘটে। ১২ পৃষ্ঠার চিঠির সাতটি পৃষ্ঠায় এই ঘটনা ঘটিয়েছে। বিষয়টি তদন্তে মোংলা বন্দরের যান্ত্রিক ও তড়িৎ বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী লে. কর্নেল মুহাম্মদ নাসির উদ্দিনকে প্রধান করে তিন সদস্যের কমিটি করা হয়েছে। ১০ কার্যদিবসের মধ্যে প্রকৃত ঘটনা উদঘাটনসহ দায়ী ব্যক্তিকে চিহ্নিত করে প্রতিবেদন জমা দেওয়ার কথা থাকলেও কমিটি তা পারেনি। মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের ট্রাফিক বিভাগ সূত্র জানায়, ২০২১ সালের জানুয়ারি মাসের কার্গো হ্যান্ডেলিং সম্পর্কিত তথ্য উপাত্ত সরবরাহ প্রসঙ্গে ১২ পৃষ্ঠার নথি ফাইল বাংলাদেশ ব্যাংক খুলনা শাখায় পাঠানো হয়। সরকারি এই ফাইলের অফিস কপির সাতটি পৃষ্ঠায় মুজিব শতবর্ষেও লোগোতে বঙ্গবন্ধুর ছবিতে কলম দিয়ে কাটাকাটি অবস্থায় পাওয়া যায়।

-বাগেরহাট প্রতিনিধি

 

পুলিশ ও যুবকের হাতাহাতি ভাইরাল

ফেনী শহরের ট্রাংকরোডের মডেল হাই স্কুলের সামনে পুলিশ সদস্যদের সঙ্গে শহীদুল ইসলাম নামের এক যুবকের হাতাহাতি ও ধস্তাধস্তির ঘটনা ঘটেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, গত রবিবার বিকালে শহীদুল ইসলাম লকডাউন চলাকালীন রাস্তায়  ঘোরাঘুরি করার সময় পুলিশ তাকে লকডাউনের মধ্যে রাস্তায় বের হওয়ার কারণ জিজ্ঞাসা করলে পুলিশের সঙ্গে তার ধস্তাধস্তির ঘটনা ঘটে। এই সময় সে পুলিশকে প্রশ্ন করে এটা কি পুলিশি রাষ্ট্র হয়ে গেছে নাকি? পুলিশ তাকে মারতে গেলে সেও পুলিশকে এলাপাতাড়ি লাথি-ঘুসি মারতে থাকে। ঘটনাটি কেউ একজন ভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফেসবুকে ছেড়ে দিলে মুহ‚র্তে ঘটনাটি ভাইরাল হয়ে যায়। শহীদুল ইসলামের বাড়ি ফেনী সদর উপজেলার মোটবী ইউনিয়নের ভূঞার হাট বলে জানা যায়। সে যুবলীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত বলে জানা গেছে।  ফেনীর পুলিশ সুপার নুরুনবী জানান, এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে একজন উপ-পরিদর্শক, একজন সহকারী উপ-পরিদর্শক ও একজন কনস্টেবলকে ক্লোজ করা হয়েছে।   

-ফেনী প্রতিনিধি

 

ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা

ময়মনসিংহের ভালুকায় এক ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। গতকাল বিকালে উপজেলার ধীতপুর ইউনিয়নের ধীতপুর গ্রামে আকন্দ বাড়ির সামনে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আসাদুল ইসলাম (৪৮) উপজেলার বিরুনিয়া ইউনিয়নের ভাওয়ালিয়াবাজু গ্রামের মৃত শামছুদ্দিনের ছেলে। তিনি পেশায় মৎস্য ফিড ব্যবসায়ী। ব্যবসায়ী আসাদুল ইসলামকে কে বা কারা কী কারণে হত্যা করেছে তা এখনো নিশ্চিত হতে পারেনি পুলিশ। তবে পূর্ব বিরোধের জেরে পরিকল্পিতভাবে এই হত্যাকান্ডটি ঘটানো হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে নিহতের পরিবার। নিহতের স্বজনরা জানান, আসাদুল ইসলাম তার নিজ বাড়ি থেকে বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে ধীতপুর বাজারের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। পরে আকন্দ বাড়ির সামনে পৌঁছামাত্র দুর্বৃত্তরা তার ওপর হামলা করে। ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে মৃত্যু নিশ্চিত করে দুর্বৃত্তরা চলে যায়। ভালুকা মডেল থানার ওসি  মো. মাহমুদুল ইসলাম বলেন, ‘খবর পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। হত্যার রহস্য উদঘাটনে কাজ শুরু হয়েছে। পাশাপাশি ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতারে  চেষ্টা চলছে।

-ভালুকা প্রতিনিধি

 

সালথা তাণ্ডবে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান গ্রেফতার

ফরিদপুরের সালথায় সহিংস তান্ডবের ঘটনায় সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মো. ওয়াহিদুজ্জামানকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত সোমবার রাতে ডিবি পুলিশের একটি দল ফরিদপুর শহরের ঝিলটুলি এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে। সালথার তান্ডবের ঘটনায় পুলিশের দায়ের করা মামলায় ওয়াহিদকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ। গ্রেফতারের বিষয় নিশ্চিত করে ফরিদপুরের পুলিশ সুপার আলীমুজ্জামান বলেন, সালথায় সরকারি অফিসে তান্ডবের ঘটনায় গ্রেফতার হওয়া সাত আসামির আদালতে দেওয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে ওয়াহিদের নাম উঠে আসায় তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তান্ডবের ঘটনায় সালথা থানা পুলিশের এসআই মিজানুর রহমানের করা মামলায় ওয়াহিদকে গ্রেফতার দেখিয়ে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করে আদালতে পাঠানো হয়েছে।   

-ফরিদপুর প্রতিনিধি

 

সড়কে কার্টনের ভিতর নবজাতকের মরদেহ

এক নবজাতককে কে বা কারা ফেলে যায় সড়কের পাশে। স্থানীয় আনাছ নামে এক পথচারী সড়কের ওপর দেখতে পায় কাগজের কার্টন। উৎসুক ওই যুবক কার্টনটি খুলে ভিতরে নবজাতকের মরদেহ দেখতে পান। তিনি সঙ্গে সঙ্গে ৯৯৯ ফোন দিয়ে ঘটনাটি জানান। অল্পক্ষণ পরই পুলিশ এসে উদ্ধার করে নবজাতকের লাশ। কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরসভার চকরিয়া সরকারি উচ্চবিদ্যালয় সড়কে গত রাত সাড়ে ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। চকরিয়া থানার ওসি শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বলেন, নবজাতকের মরদেহ কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ওসি জানান, নবজাতক কার তা জানা যায়নি। তাই ডিএনএ টেস্ট করে রাখা হবে।    

-চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

 

সড়ক দখল করে লোড আনলোড, চলাচলে দুর্ভোগ

গাজীপুরের টঙ্গীর বিভিন্ন এলাকায় সড়ক ও ফুটপাথ দখল করে গাড়ি পার্কিং করে মালামাল লোড-আনলোড করায় চলাচলে দুর্ভোগের সৃষ্টি হচ্ছে। সিটি কর্তৃপক্ষ এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেওয়ায় তারা আরও বেপরোয়া হয়ে উঠেছে।

সরেজমিন ঘুরে জানা যায়, টঙ্গীর শিলমুন, মরকুন, গোপালপুর, আরিচপুর, দত্তপাড়া, গাজীপুরা, আউচপাড়া, মুদাফা বিভিন্ন এলকায় বিভিন্ন কারখানা কর্তৃপক্ষ সড়কের জায়গা কিংবা ফুটপাথ দখল করে পিকআপ ভ্যান ও বড় বড় পণ্যবাহী ট্রাক রেখে মালামাল লোড-আনলোড করছে। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কারখানা কর্তৃপক্ষ জানান, ভাড়া জায়গায় কারখানা তাই স্পেস কম। সবার একই অবস্থা। স্থানীয় বাসিন্দারা বলছেন, বিভিন্ন ওয়াশিং ও পোশাক কারখানার নিজস্ব গাড়ি পার্কিংয়ের ব্যবস্থা নেই। এরা মানুষের চলাচলের পথ দখল করে ব্যবসায়িক কার্যক্রম পরিচালনা করছে। গাজীপুর সিটি করপোরেশন টঙ্গী জোনের আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সোহরাব হোসেন বলেন, সড়ক কিংবা ফুটপাথের জায়গা দখল করে মানুষের চলাচলে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করা যাবে না। এ ব্যাপারে অভিযোগ পেলে  অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

-টঙ্গী প্রতিনিধি

এই বিভাগের আরও খবর