Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৩ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৬:৪৪
আপডেট : ২৩ জানুয়ারি, ২০১৯ ২১:১৪

ভারতের সক্রিয় রাজনীতিতে প্রবেশ করলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী

দীপক দেবনাথ, কলকাতা

ভারতের সক্রিয় রাজনীতিতে প্রবেশ করলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী
ফাইল ছবি

ভারতের লোকসভা ভোটের আগে প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে সরাসরি রাজনীতিতে নামিয়ে মাস্টারস্ট্রোক দিল ভারতের জাতীয় কংগ্রেস। দলের সাধারণ সম্পাদক হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হল প্রিয়াঙ্কাকে। বুধবারই আনুষ্ঠানিকভাবে দলের তরফে এক বিবৃতি দিয়ে একথা ঘোষনা করা হয়। আর এই পদের হাত ধরেই কার্যত এদিন থেকেই সোনিয়া কন্যা প্রিয়াঙ্কার রাজনীতিতে প্রবেশ হল। 

ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী তথা দাদী ইন্দিরা গান্ধীর মধ্যে অনেকেই প্রিয়াঙ্কার চালচলন, কথাবার্তার মিল খুঁজে পান। স্বাভাবিক ভাবেই প্রিয়াঙ্কাকে সক্রিয় রাজনীতিতে নিয়ে আসার দাবি দীর্ঘদিনের। কংগ্রেসের একটা বড় অংশের অভিমত, প্রিয়াঙ্কা গান্ধী সামনে থেকে দলের ব্যাটন ধরলে কর্মী-সমর্থকরা আরও উজ্জীবীত হবে। 

গত ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনেও রাহুল ও মা সোনিয়ার হয়ে রায়বেরিলি ও আমেঠিতে প্রচারণা চালিয়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা। প্রিয়াঙ্কার নিজেও সক্রিয় রাজনীতিতে আসার ব্যাপারে অতটা আগ্রহ ছিল না। কিন্তু বুধবার দলের তরফে প্রেস বিবৃতি দিয়ে বলা হয় ‘অল ইন্ডিয়া কংগ্রেস কমিটি (এআইসিসি)-এর সাধারণ সম্পাদক হিসাবে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরাকে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। ২০১৯ সালের ফ্রেবুয়ারী মাস থেকেই তিনি পূর্ব উত্তরপ্রদেশের দায়িত্ব গ্রহণ করবেন তিনি। দলের পশ্চিম উত্তরপ্রদেশের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়াকে।’ 

আর এই ঘোষনার পরই ভারতজুড়ে কংগ্রেস কর্মীদের মধ্যে খুশির হাওয়া বইছে। আমেঠিতে রীতিমতো উৎল্লাস শুরু হয়ে যায়। সোনিয়া গান্ধীর নির্বাচনী কেন্দ্র রায়বেরিলিতে আতশবাজি পোড়ানোর পাশাপাশি করা হয় মিষ্টিমুখ। সক্রিয় রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার পর প্রিয়াঙ্কাকে অভিনন্দন জানান তার স্বামী রবার্ট বঢরাও। 

এব্যাপারে কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী বলেন ‘আমি ব্যক্তিগতভাবে খুবই খুশি যে এখন থেকে সে (প্রিয়াঙ্কা) আমার সাথে কাজ করবে। ও যথেষ্ট কর্মঠে।’
  
যদিও এ নিয়ে বিজেপি কটাক্ষ করতে ছাড়েনি। দলের অভিমত প্রিয়াঙ্কার রাজনীতিতে প্রবেশের অর্থই  রাহুলের ব্যর্থতার কথা স্বীকার করে নেওয়া। কংগ্রেসের বিরুদ্ধে পরিবারতন্ত্রের অভিযোগ তুলে বিজেপি মুখপাত্র সম্বিত পাত্র জানান ‘কংগ্রেস প্রধানত প্রকাশ্যে জানিয়ে দিল যে রাহুল গান্ধী ব্যর্থ। তাই পরিবারের মধ্যে থেকেই কাউকে হাল ধরতে হবে। কারন মহাজোটের দলগুলিকে তাকে পরিত্যগ করেছে। তাই তিনি পারিবারের কাউকে এগিয়ে আসার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন।’  


বিডি-প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ তাফসীর


আপনার মন্তব্য