২৩ জানুয়ারি, ২০২২ ১৬:৩৪

দুই দশক পলাতক যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম

দুই দশক পলাতক যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার

চট্টগ্রামের আলোচিত অধ্যক্ষ গোপাল কৃষ্ণ মুহুরী হত্যা মামলার যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামী মহিউদ্দিন ওরফে মহিন উদ্দিনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। দুই দশক ধরে পলাতক মহিউদ্দিনকে শনিবার রাতে নগরীর পাঁচলাইশ থানাধীন সুগন্ধা আবাসিক এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়।

র‌্যাব-৭ অধিনায়ক লে কর্নেল এম এ ইউসুফ বলেন, আলোচিত মুহুরী হত্যা মামলার যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি মহিউদ্দিন। ২০০৩ সালে এ মামলার রায় ঘোষণার পর সংযুক্ত আরব আমিরাতে পালিয়ে যান। প্রায় দুই দশক প্রবাসে ছিলেন। গত ২৯ অক্টোবর দেশে ফিরে আত্মগোপনে চলে যান। রবিবার রাতে আমিরাতে পালিয়ে যাওয়ার কথা ছিল। এ জন্য করোনা পরীক্ষাও করান। গোপনসূত্রে অবস্থানের কথা জানতে পেরে সুগন্ধা আবাসিক এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

প্রসঙ্গত, ২০০১ সালের ১৬ নভেম্বর মাথায় অস্ত্র ঠেকিয়ে গুলি করে হত্যা করা হয় নাজিরহাট কলেজের অধ্যক্ষ গোপাল কৃষ্ণ মুহুরীকে। এ ঘটনার তার স্ত্রী রেলওয়ের তৎকালিন অডিট কর্মকর্তা উমা মুহুরী বাদি হয়ে কোতোয়ালী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় আদালত নাসির ওরফে গিট্টু নাসির, আজম, আলমগীর ও মন্টুকে মৃত্যুদণ্ড দেন। যাবজ্জীবন সাজা দেয়া হয় মহিউদ্দিন ওরফে মহিনউদ্দিন, হাবিব খান, সাইফুল ওরফে ছোট সাইফুল ও শাহাজাহানকে। রায়ের পর মামলার ডেথ রেফারেন্স হাই কোর্টে আসে। পাশাপাশি কারাগারে থাকা আসামিরাও আপিল করেন। হাইকোর্ট ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড বহাল রেখে ২০০৬ সালের ১৯ জুলাই রায় দেয়। সেই রায়ে যাবজ্জীবন সাজার আসামি শাহাজাহান ও সাইফুল ওরফে ছোটো সাইফুল খালাস পান, অন্যদের সাজা বহাল থাকে। ২০২০ সালে আপিল বিভাগ তিন আসামির সাজা কমিয়ে অমৃত্যু কারাদণ্ডের পাশাপাশি ৫০ হাজার টাকা করে অর্থদণ্ডের আদেশ দেন।

বিডি-প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর