শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৯ জানুয়ারি, ২০২১ ২৩:০১

জিয়াউর রহমানের ৮৫তম জন্মবার্ষিকী পালিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

নানা আয়োজনে গতকাল রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৮৫তম জন্মবার্ষিকী পালিত হয়েছে। বেলা ১১টায় রাজধানীর শেরেবাংলানগরে জিয়াউর রহমানের কবরে ফাতেহা পাঠ, মোনাজাত ও ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দসহ দল ও অঙ্গ-সংগঠনের সর্বস্তরের নেতা-কর্মীরা।  কবরে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন শেষে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাংবাদিকদের বলেন, এ সরকার ভ্যাকসিন নিয়েও লুটপাট ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়েছে। তারা করোনা নিয়ন্ত্রণ করতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে। এখন তারা ভ্যাকসিন নিয়ে লুটপাটে নিমগ্ন হয়েছে। জনগণের কাছে তাদের জবাবদিহিতা না থাকায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান একজন ক্ষণজন্মা পুরুষ। স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েই তিনি নীরব ছিলেন না।

 তিনি সরাসরি যুদ্ধ করেছেন। রণাঙ্গনে থেকে যুদ্ধ করে তিনি দেশকে মুক্ত করেছেন, স্বাধীন করেছেন। শুধু তাই নয়, ’৭৫ সালে যখন জাতি তাঁর ওপর দায়িত্ব অর্পণ করে তখন তিনি বিভক্ত জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করেছেন। তিনি সংবাদপত্রের স্বাধীনতা দিয়েছেন। বহুদলীয় গণতন্ত্র ফিরিয়ে দিয়েছেন। মানুষের মৌলিক অধিকার ফিরিয়ে দিয়েছেন। বিএনপির এই মুখপাত্র বলেন, আজকে বিএনপির ওপর অত্যাচার-নির্যাতন চলছে। ৩৫ লাখ নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে মামলা দেওয়া হয়েছে। নেতা-কর্মীদের খুন-গুম করা হচ্ছে। এর থেকে মুক্তির জন্য আজকে নতুন করে শপথ গ্রহণ করছি। আমরা অবশ্যই গণতন্ত্রকে মুক্ত করব। আমাদের নেত্রী খালেদা জিয়াকে মুক্ত করব। আমাদের নেতা তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনব।

এ সময় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, সেলিমা রহমান, ভাইস চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর (বীর উত্তম), ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ, যুগ্ম মহাসচিব ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, খায়রুল কবির খোকন, হাবিব-উন নবী খান সোহেল, মহানগর বিএনপির কাজী আবুল বাশার, মুনসী বজলুল বাসিত আনজু, আবদুল আলীম নকি, মীর সরাফত আলী সপু, আমিরুল ইসলাম আলীম, ইসতিয়াক আজিজ উলফাত, সাইফুল আলম নিরব প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জিয়াউর রহমানের ৮৫তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে গতকাল সকাল সাড়ে ১০টায় নেতা-কর্মীরা শেরেবাংলানগরে জিয়াউর রহমানের সমাধিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করেন। এ ছাড়াও কেন্দ্রীয় কার্যালয়সহ সারা দেশের সব দলীয় কার্যালয়ে দলীয় ও জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। দৈনিক সংবাদপত্রে ক্রোড়পত্র ও পোস্টার প্রকাশ এবং কেন্দ্রীয় বিএনপির উদ্যোগে ঢাকায় বিকাল ৩টায় ভার্চুয়াল আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। দলের বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনসহ পেশাজীবী সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের চিত্রাঙ্কন ও রচনা প্রতিযোগিতা, আলোকচিত্র প্রদর্শন এবং চিকিৎসকদের সংগঠনগুলো ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পের আয়োজন করে। জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম সুপ্রিম কোর্ট বার অডিটোরিয়ামে আজ বেলা ২টায় জিয়াউর রহমানের কর্মময় জীবনের বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা সভা করবে। জেলা ও মহানগর এবং বিভিন্ন থানা বিএনপির পক্ষ থেকেও গতকাল দিবসটি উপলক্ষে নানা কর্মসূচি পালিত হয়েছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর