শিরোনাম
সোমবার, ৩০ জানুয়ারি, ২০২৩ ০০:০০ টা

টেকনাফ বন্দরে মালামাল চুরির প্রতিবাদে ধর্মঘট, সব কার্যক্রম বন্ধ

কক্সবাজার প্রতিনিধি

কক্সবাজারের টেকনাফ স্থলবন্দর থেকে মালামালবাহী একটি কার্গো বোট থেকে শতাধিক বস্তা সুপারি ও অন্যান্য আমদানি পণ্য চুরি হয়ে গেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনার প্রতিবাদে বন্দরে কর্মরত সিঅ্যান্ডএফ এজেন্টরা ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন। ফলে সপ্তাহের প্রথম দিন গতকাল মিয়ানমার থেকে আসা টেকনাফ স্থলবন্দরে কোনো পণ্যবাহী ট্রলারের মালামাল খালাস হয়নি। সকাল থেকে বিভিন্ন ধরনের পণ্যবাহী কার্গো ট্রলার ও জাহাজ থেকে মালামাল ওঠানামা বন্ধ রয়েছে। বন্দর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, গতকাল বিকাল পর্যন্ত বন্দরে মিয়ানমার থেকে আসা ৩৫টি মালামালবোঝাই কার্গো বোট মালামাল খালাসের অপেক্ষায় রয়েছে। এসব জাহাজ ও কার্গো বোটে কোটি কোটি টাকার পচনশীল পণ্য রয়েছে। সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে মিয়ানমার থেকে ৭০০ বস্তা সুপারি ও অন্যান্য মালামাল নিয়ে টেকনাফ স্থলবন্দরে একটি কার্গো বোট আসে। সাদ্দাম হোসেন, ফারুক ও শওকত নামের তিন ব্যবসায়ী এ মালামাল নিয়ে আসেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে মালামালসহ কার্গো বোটটি বন্দরে অ্যান্ট্রি হয়। ব্যবসায়ীরা জানান, রাতেই মালামালসহ বন্দরের ঘাট থেকে কার্গো বোটটি উধাও হয়ে যায়। পরের দিন নাফ নদী থেকে ৫৭৪ বস্তা সুপারি ও ৮০ বস্তা কপিসহ একটি কার্গো বোট পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

স্থলবন্দরের কাস্টমস সুপার লুৎফর হক বলেন, সিঅ্যান্ডএফ এজেন্টের কর্মবিরতি পালন করায় কাজ বন্ধ রয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর