শিরোনাম
প্রকাশ : ১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ১৪:০৫

৩৫ কি.মি হেঁটে জাবিতে সেই হানিফ বাংলাদেশি, চাইলেন ভিসির পদত্যাগ

অনলাইন ডেস্ক

৩৫ কি.মি হেঁটে জাবিতে সেই হানিফ বাংলাদেশি, চাইলেন ভিসির পদত্যাগ

জাতীয় প্রেস ক্লাব থেকে ৩৫ কিলোমিটার পায়ে হেঁটে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে যান সেই হানিফ বাংলাদেশি। এসময় তিনি দুর্নীতির অভিযোগ ওঠায় জাবি ভিসি অধ্যাপক ফারজাান ইসলামের পদত্যাগ দাবি জানিয়ে স্মারকলিপি জমা দেন।  

বৃহস্পতিবার বিকালে জাবি ক্যাম্পাসে যান সেই হানিফ বাংলাদেশি। এসময় তার সঙ্গে ছিলেন সাখাওয়াত হেসেন, আল আমিন রাজু, ফেরদৌস জিন্নাহ লেলিন।

ভিসির পক্ষে স্মারকলিপি গ্রহণ করেন জেবরুল হাসান। এসময় উপস্থিত ছিলেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্দোলনরত সাধারণ ছাত্ররা। 

স্মারকলিপিতে হানিফ বাংলাদেশি বলেন, স্বাধীনতার পর থেকে রাজনৈতিক দলগুলো যে যখন ক্ষমতায় এসেছে, সে দলই ঘুষ-দুর্নীতি ও নৈতিক অবক্ষয়ে নিমজ্জিত ছিল। যা আজ চরম আকার ধারণ করেছে। সমাজ রাষ্ট্র সর্বত্রই ঘুষ-দুর্নীতি, সামাজিক-মানবিক-পারিবারিক মূল্যবোধের অবক্ষয় চলছে।

তিনি বলেন, পরস্পর দোষারোপ ও প্রতিহিংসার রাজনীতি অবক্ষয়কে আরও বাড়িয়ে দিচ্ছে। যে দল যখন ক্ষমতায় আসে তারা দেশের প্রতিটি প্রতিষ্ঠানে নিজেদের আজ্ঞাবহ লোকদের বিভিন্ন পদে পদায়ন করে। এতে সর্বত্রই বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হয়। 

হানিফ আরও বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি একটি সম্মানজনক, মর্যাদাশীল ও আদর্শিক পদ। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা দীর্ঘদিন যাবত ভিসির বিরুদ্ধে নৈতিক স্খলনজনিত অভিযোগের ভিত্তিতে আন্দোলন করছে। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার পরিবেশ ব্যাহত হচ্ছে। যা কারোই কাম্য নয়।

‘আমরা আশা করি ভিসি তার ওপর আনিত অভিযোগ মিথ্যা প্রমাণ করুন। না হলে সম্মানের সহিত পদত্যাগ করে বিশ্ববিদ্যালয়ে সুন্দর-সুষ্ঠু পরিবেশ ফিরিয়ে এনে উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে আহ্বান জানাচ্ছি।’

নোয়াখালীর নিয়াজপুর ইউনিয়নের জাহানাবাদ গ্রামের আবদুল মান্নান রেনু মিয়ার একমাত্র ছেলে মোহাম্মদ হানিফ। দেশের বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে কাজ করায় বন্ধুরা তাকে ‘হানিফ বাংলাদেশি’ বলে ডাকেন। বর্তমানে তিনি এ নামেই পরিচিত।


বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য