শিরোনাম
প্রকাশ : ২৯ মার্চ, ২০২০ ২১:৪১

কলকাতার চিকিৎসকের শরীরেও করোনা

অনলাইন ডেস্ক

কলকাতার চিকিৎসকের শরীরেও করোনা

এবার কলকাতায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলেন এক চিকিৎসক৷ তিনি আলিপুর কম্যান্ড হাসপাতালের অ্যানাস্থেশিওলজিস্ট৷ ৫২ বছর বয়সী ওই চিকিৎসক সম্প্রতি দিল্লি গিয়েছিলেন৷ গত ১৬ মার্চ সেখান থেকে ফেরেন তিনি৷ তার পরেই অসুস্থ হয়ে পড়েন ওই চিকিৎসক৷

জানা গেছে, দিল্লি থেকে ফেরার পর গত শুক্রবার থেকে জ্বর এবং শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন ওই চিকিৎসক৷ এরপর নাইসেডে তার করোনার নমুনা পরীক্ষার ফল পজিটিভ আসে৷ আপাতত কম্যান্ড হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন তিনি৷

গত ১৬ মার্চ দিল্লি থেকে ফিরেছিলেন ওই চিকিৎসক৷ ১৭ তারিখে তিনি হাসপাতালে কাজে যোগ দেন৷ এরপর ২১ তারিখ পর্যন্ত তিনি হাসপাতালে ডিউটি করেন৷ কম্যান্ড হাসপাতালের অ্যানাস্থেশিয়া বিভাগের প্রধান ওই চিকিৎসক৷ 

দিল্লি থেকে ফেরার পর তিনি হাসপাতালে অনেকের সঙ্গেই দেখা করেছেন, রোগীও দেখেছেন৷ ফলে শরীরে সংক্রমণ নিয়েই তিনি হাসপাতালে কাজ করেছেন বলে অনুমান করা হচ্ছে৷ ওই চিকিৎসক যাদের সংস্পর্শে এসেছিলেন, তাদেরও চিহ্নিত করার কাজ শুরু হয়েছে৷

ওই চিকিৎসককে আপাতত আইসিইউতে রাথা হয়েছে৷ তবে তার অবস্থা স্থিতিশীল৷ দিল্লিতে তিনি কোনও করোনা আক্রান্তের সংস্পর্শে এসেছিলেন বলেই প্রাথমিকভাবে অনুমান করা হচ্ছে৷ ওই চিকিৎসকের সিটি স্ক্যান করার পর ভাইরাল নিউমোনিয়া ধরা পড়ে৷ তখনই তার করোনা পরীক্ষার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়৷

বিডি প্রতিদিন/আরাফাত


আপনার মন্তব্য