Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৩ মার্চ, ২০১৯ ১৯:৩৯
আপডেট : ২৩ মার্চ, ২০১৯ ১৯:৪০

আওয়ামী লীগ নেতা হত্যা মামলায় এজাহারভুক্ত আসামি গ্রেফতার

ফাতেমা জান্নাত মুমু, রাঙামাটি

আওয়ামী লীগ নেতা হত্যা মামলায় এজাহারভুক্ত আসামি গ্রেফতার

রাঙামাটির বিলাইছড়ি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সুরেশ কান্তি তঞ্চঙ্গ্যা হত্যা মামলায় এজাহারভুক্ত আসামি স্নেহাশীষ চাকমাকে (৪৩) গ্রেফতার করেছে যৌথবাহিনী।

শনিবার সকালে শহরের বনরূপার বালফিয়া আদম এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। 

স্নেহাশীষ চাকমা নিজেকে সন্তু লারমার পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির সমর্থিত সংগঠন পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সাবেক নেতা ছিল বলে দাবি করেছে। পরে থাকে থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয় ।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শহরের বনরূপার বালফিয়া আদম এলাকা অভিযান চালায় যৌথবাহিনীর একটি বিশেষ দল। পরে স্নেহাশীষ চাকমাকে একটি চায়ের দোকান থেকে যৌথবাহিনীর দলটি করে গ্রেফতার করে। পরে তাকে রাঙামাটি কোতোয়ালী থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়। 

এব্যাপারে যৌথবাহিনীর একটি সূত্র জানায়, স্নেহাশীষ চাকমা বিলাইছড়ি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সুরেশ কান্তি তঞ্চঙ্গ্যা হত্যার এজাহারভুক্ত আসামি। এছাড়া প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে এ হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত থাকার তার সম্পৃক্ততা পাওয়া গেছে। 

রাঙামাটি কোতোয়ালী থানায় কর্মকর্তা (ওসি) মো. জাহিদুল হক রনি জানান, সুরেশ কান্তি তঞ্চঙ্গ্যা হত্যা মামলায় স্নেহাশীষ চাকমাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে এখন পুলিশ হেফাজতে আছে। পরে তাকে আদালতে হাজির করে রিমান্ড আবেদন করা হবে। 

এদিকে বিলাইছড়ি থানায় কর্মকর্তা (ওসি) পারভেজ আলী এঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এ হত্যায় মামলায় স্নেহাশীষ চাকমা নামে এক আসামিকে রাঙামাটি শহর থেকে আটক করেছে যৌথবাহিনী। বাকি আসামিদেরও দ্রুত গ্রেফতার করা হবে।

এদিকে উপজেলা সভাপতি সুরেশ কান্তি তঞ্চঙ্গ্যা হত্যাকাণ্ডের চার দিন পরও পরিবার থেকে কোনো মামলা করেনি। তবে উপজেলা আওয়ামী লীগের অর্থ সম্পাদক মনির হোসেন বাদী হয়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির শাখার সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শুভ মঙ্গল চাকমাসহ ২০ জনের নাম উল্লেখ করে আরও ৭জন অজ্ঞাতনামাসহ মোট ২৭জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।


বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য