৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৯:২৫

স্রোতের কারণে চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথে ফেরি চলাচলে বিঘ্ন

শরীয়তপুর প্রতিনিধি:

স্রোতের কারণে চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথে ফেরি চলাচলে বিঘ্ন

পদ্মা ও মেঘনা নদীতে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। সেই সাথে নদীতে স্রোতের তীব্রতাও বেড়েছে। স্রোতের কারণে চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথে ফেরি চলাচল বিঘ্নিত হচ্ছে। স্বাভাবিক ভাবে ফেরি চলাচল না করতে পারায় নদীর উভয়পাশে জানজটের সৃষ্টি হয়েছে। পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছে ৩ শতাধিক গাড়ি।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরিন নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) সূত্র জানায়, চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌ-পথে যানবাহন পারাপারের জন্য ৭টি ফেরি রয়েছে। এর মধ্যে ১টি ফেরি বোলগ্যাট এর সাথে ধাক্কা লেগে বিকল হয়ে রয়েছে। মেরামতের কাজ চলছে। মেঘনা নদীতে স্রোত বৃদ্ধি পাওয়ায় ফেরি কিশোরী, কামিনি ও কস্তুরি স্রোতের বিপরীতে চলাচল করতে সমস্যায় পড়ছে। 

ফেরি ঘাটে আটকেপড়া ট্রাকচালক আব্দুর রহিম বলেন, দৌলদিয়া-পাটুরিয়া ঘাটে যানজট। বাংলাবাজার-শিমুলিয়া ঘাট থেকে ফেরি ছাড়ছে না। তাই নরসিংহপুর আলুবাজার ঘাট হয়ে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হই। এখানেও স্রোতের কারনে ফেরি চলাচল বিঘ্নিত হচ্ছে। কখন ফেরিতে উঠতে পারব তা বুঝতে পারছি না। 

বিআইডব্লিউটিসির নরসিংহপুর ফেরিঘাটের ব্যবস্থাপক আব্দুল মোমেন বলেন, স্রোতের কারণে ফেরি চলাচল বিঘ্নিত হচ্ছে। প্রতি ৬ ঘন্টা পরপর জোয়ার-ভাটা হয়। ভাটার সময় নদীতে স্রোতে বেশি থাকায় ফেরি চলাচল করতে পারে না। তাই এই রুটের ৬টি ফেরি চলাচল করলেও জোয়ারের সময় ফেরি চালাতে কষ্ট হয়ে যায়। এজন্য গাড়ি আটকা পড়ে। চারটি ফেরি উজানে গিয়ে মেঘনা পাড়ি দিতে হয়। স্রোতের তিব্রতা কমলে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক হয়।
 
বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার 

এই বিভাগের আরও খবর