২৪ জানুয়ারি, ২০২২ ২১:৫৪

টেকনাফে জালে ধরা পড়ল ২১০টি সুরমা মাছ

আব্দুস সালাম, টেকনাফ (কক্সবাজার)

টেকনাফে জালে ধরা পড়ল ২১০টি সুরমা মাছ

কক্সবাজারের টেকনাফে এক জেলের জালে ২১০টি সুরমা (মাইট্যা) মাছ ধরা পড়েছে। চট্টগ্রামের স্থানীয় লোকজন এই মাছকে মাইট্যা ও চাপা সুরমা মাছ নামে চিনে।

সোমবার দুপুর ২ টার দিকে টেকনাফ উপজেলার শাহপরীর দ্বীপ জেটি ঘাট ফিশারিজ বাজারে ট্রলার থেকে ছোট বড় ২১০টি মাছ তোলা হয়। শাহপরীরদ্বীপ এলাকার সুলতান আহাম্মদ এর মালিকানাধীন ট্রলারে মাছগুলো ধরা পড়ে। বড় ৪০টি প্রতিটি মাছের ওজন সাড়ে ১৫ কেজি থেকে ৯ কেজি। বাকি মাছ গুলির ওজন সাড়ে ৬ কেজি থেকে সাড়ে ৩ কেজি। মোট মাছের ওজন হল ৭৫৫ কেজি। ট্রলারে মালিক সুলতান আহাম্মদ মাছগুলো বিক্রি করেছেন ৩ লাখ ৯০ হাজার টাকায়।

মৎস্য ব্যবসায়ী মোহাম্মদ লালু বলেন, বর্তমানে পর্যটন মৌসুম চলছে। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে পর্যটকেরা কক্সবাজার ও সেন্টমার্টিনে বেড়াতে আসছেন। খাবারের হোটেল-রেস্তোরাঁ গুলোতে এই সব মাছের প্রচুর চাহিদা রয়েছে। বিভিন্ন হোটেল-রেস্তোরাঁ কর্তৃপক্ষ মাছের জন্য আগাম বুকিং দিয়েছে। মাছ গুলি বরফ দিয়ে প্যাকেটিং করে কক্সবাজার ও সেন্টমার্টিনে পাঠানো হবে।
এ বিষয়ে টেকনাফ উপজেলার জ্যেষ্ঠ মৎস্য কর্মকর্তা মোহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন বলেন, শাহ পরীর দ্বীপে মাইট্যা ও চাপা (সুরমা) মাছ আটকা পড়ার খবর শুনেছি। এই মাইট্যা মাছ খেতে খুব সুস্বাদু। মাইট্যা মাছ এর বৈজ্ঞানিক নাম হল (Scomberomorus guttatus)। সরকার মাছের প্রজনন ও ডিম ছাড়ার সময়ে ৬৫ দিন সাগরে সব ধরণের মাছ ধরা বন্ধ ছিলো গত বছর। তিনি মনে করেন তারই সুফল পাওয়া যাচ্ছে এখন। 

বিডি-প্রতিদিন/ সালাহ উদ্দীন

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর