Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ৪ জুন, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৩ জুন, ২০১৯ ২৩:৩৮

টাইগারদের প্রোটিয়াবধ

দেশবাসীর জন্য ঈদ উপহার

টাইগারদের প্রোটিয়াবধ

বাঘের গর্জনই শোনা গেছে বিশ্বকাপে। প্রথম ম্যাচেই তারা পরাক্রমশালী দক্ষিণ আফ্রিকা দলকে হারিয়েছে ২১ রানে। প্রোটিয়াবধের এই মহাকাব্যে ব্যাট ও বল দুই ক্ষেত্রেই টাইগাররা ছিল এগিয়ে। ঈদের চাঁদ ওঠার আগেই দেশবাসীর জন্য এক অনন্য ঈদে উপহার দিয়েছে মাশরাফি বাহিনী। ইংল্যান্ডের ওভাল মাঠে রবিবার টসে হারে বাংলাদেশ। এই হারাটাই যেন বাংলাদেশের জন্য শাপেবর হয়ে দাঁড়ায়। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, সৌম্য সরকার, মোসাদ্দেক হোসেনের সম্মিলিত প্রয়াসে সৃষ্টি হয়েছে যে কোনো বিশ্বকাপে দলীয় সর্বোচ্চ রানের নতুন রেকর্ড। ৬ উইকেটে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৩৩০ রান। এ কথা ঠিক ওভালের ব্যাটিং পিচে এ রান খুব একটা নির্ভরযোগ্য নয়। তবে টাইগারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিং দক্ষিণ আফ্রিকার শক্তিশালী ব্যাটিং লাইনআপকে ৩০৯ রানে আটকে রেখে দেশবাসীর জন্য এনে দেয় অসাধারণ জয়। ব্যাটে, বলে এবং ফিল্ডিংয়ে জাদুকরী পারফরম্যান্স দেখিছেন সাকিব আল হাসান। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার একটি বিশ্বরেকর্ডও গড়েছেন। ৫০০০ রান এবং ২৫০ উইকেট নিয়ে কিংবদন্তি অলরাউন্ডারদের বিরল তালিকায় নিজের নাম লিখিয়েছেন। সাকিব যেন তার জার্সি নম্বরের সঙ্গে মিল রেখে ব্যাট হাতেও খেলেছেন ৭৫ রানের ইনিংস। বল হাতে ১০ ওভারে ৫০ রান দিয়ে নিয়েছেন ১ উইকেট। মাইলফলকে পৌঁছার জন্য তার একটি উইকেটই দরকার ছিল। তবে বোলিং কিংবা ব্যাটিংয়ের চেয়েও যেন সুন্দর ছিল তার ক্যাচটি! সাইফউদ্দিনের বলে কাভারে যেন উড়ে গিয়ে প্রোটিয়া ব্যাটসম্যান ফেলকাওয়ের ক্যাচ তালুবন্দী করেন। নির্ভরতার প্রতীক হিসেবে বিবেচিত মুশফিকুর রহিম রবিবার ৮০ বলে ৭৮ রান করে নিজের জাত চিনিয়েছেন। সৌম্য সরকার ও মাহমুদউল্লাহর ঝড়ো ইনিংস ছিল দেখার মতো। বিশ্বকাপ জয়ী পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কার বিশ্বকাপ শুরু হয়েছে লজ্জাজনক পরাজয়ের মধ্য দিয়ে। পাকিস্তান-শ্রীলঙ্কা-আফগানিস্তান ১০৫ ও ১৩৫ ও ২০৪ রানেই সাজঘরে ফিরে গেছে। মনে হচ্ছিল এশিয়ার জন্য এবারের বিশ্বকাপ যেন ‘কুফা’ হয়ে উঠেছে। কিন্তু মাশরাফি বাহিনী সে ধারণাকেই উল্টে দিয়েছে। দেশবাসীর অনন্য ঈদ উপহার দেওয়ার জন্য টাইগারদের অভিনন্দন। তাদের জন্য সাড়ে ১৬ কোটি মানুষের শুভ কামনা। আমাদের বিশ্বাস বিশ্বকাপের প্রথম খেলার জয় আরও ভালো করার ক্ষেত্রে অনুপ্রেরণা জোগাবে।


আপনার মন্তব্য