শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:৩৬

সচিবালয়ে অবস্থানের নির্দেশনা মন্ত্রী-সচিবদের জন্য নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক

সচিবালয়ে অবস্থানের নির্দেশনা মন্ত্রী-সচিবদের জন্য নয়

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান জানিয়েছেন, অফিস সময়ের পর সচিবালয়ে কারও অবস্থান না করার নির্দেশনা মন্ত্রী ও সচিবদের জন্য প্রযোজ্য হবে না। এ জন্য শনিবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে জারি করা নির্দেশনায় কিছুটা সংশোধন আনা হচ্ছে। গতকাল দুপুরে সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নিজ দফতরে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা জানান মন্ত্রী। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, প্রজ্ঞাপনটি এমন ছিল যে, বিকাল ৫টার পর আর কেউ সচিবালয়ে থাকবে না। প্রজ্ঞাপনটিতে কিছুটা সংশোধনী এনে আমরা ফাইনাল করছি। আমরা সংশোধন করছি, মন্ত্রী ও সচিবরা এই প্রজ্ঞাপনের আওতায় আসবেন না। তারা যতক্ষণ প্রয়োজন ততক্ষণ মন্ত্রণালয়ে কাজ করবেন এবং তাদের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারী যাদেরই প্রয়োজন হবে, তারাও সেখানে থাকবেন। তিনি বলেন, মন্ত্রী-সচিব ছাড়া আর কারও যদি ৫টার পর থাকার প্রয়োজন হয়, তাহলে নিরাপত্তা বাহিনীকে জানিয়ে কাজ করতে হবে। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, গোয়েন্দা সংস্থার ফাইন্ডিংস লক্ষ্য করেই এ প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এখানে কিছু প্রতিষ্ঠান আছে, যেমন হোটেল রেস্টুরেন্ট। এগুলো সম্পর্কে গোয়েন্দা তথ্য হচ্ছে—এসব হোটেল-রেস্টুরেন্টের লোকজন এবং সচিবালয়ের ভিতরে আরও কেউ কেউ রাত্রি যাপন করেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, নিরাপত্তার আগাম প্রস্তুতি এবং শৃঙ্খলার স্বার্থে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। এদিকে জঙ্গিদের লাশ নিয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে আসাদুজ্জামান খান বলেন, স্বজনদের কেউ দাবি নিয়ে না এলে গুলশান হামলার জঙ্গিদের মতো বাকি জঙ্গিদের লাশও দাফনের জন্য আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলামে হস্তান্তর করা হবে। তিনি বলেন, আমরা একটা নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত অপেক্ষা করব, এর মধ্যে যদি কোনো স্বজন না আসে তাহলে বাকি মৃতদেহগুলো আঞ্জুমানকে দাফনের জন্য দিয়ে দেওয়া হবে।


আপনার মন্তব্য