শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২৪ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ এপ্রিল, ২০১৯ ২২:৫৬

জায়ানের লাশ আসছে আজ, বাবা আইসিইউতে

নিজস্ব প্রতিবেদক

জায়ানের লাশ আসছে আজ, বাবা আইসিইউতে

শ্রীলঙ্কায় সন্ত্রাসী হামলায় নিহত আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম এমপির নাতি জায়ান চৌধুরীর লাশ আসছে আজ। দুপুর ১টা  নাগাদ কলম্বো থেকে বিমানযোগে ঢাকার হযরত শাহজালাল (রহ.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছাবে। সেখান থেকে বনানীতে শেখ সেলিমের নিজ বাসভবনে নিয়ে যাওয়া হবে। বাদ আসর বনানী চেয়ারম্যানবাড়ি মাঠে জানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে শিশু জায়ানের দাফন সম্পন্ন হবে। এ দিকে বোমা হামলায় গুরুতর আহত শেখ ফজলুল করিম সেলিমের জামাতা মশিউল হক চৌধুরী কলম্বোর হাসপাতালে নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে (আইসিইউতে) চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তাঁর পায়ে ও পেটে অস্ত্রোপচার হয়েছে। তিনি এখন ৭২ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণে রয়েছেন। এ প্রসঙ্গে শেখ ফজলুল করিম সেলিম গণমাধ্যমকে বলেন, মশিউল হক চৌধুরীর কিডনি ও লিভারে স্পি­ন্টার রয়েছে। ৭২ ঘণ্টার আগে কিছু বলা যাবে না। দুই সপ্তাহের আগে তাঁকে সেখান থেকে স্থানান্তর করা যাবে না। জায়ান চৌধুরীর জানাজার বিষয়ে শেখ সেলিমের ছোট ভাই শেখ ফজলুর রহমান মারুফ বলেন, বুধবার দুপুর ১টায় মরদেহ দেশে পৌঁছাবে। আসরের নামাজের পর বনানীর চেয়ারম্যানবাড়ি মাঠে জানাজা হবে। জানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে জায়ানকে দাফন করা হবে। নিহত জায়ানের পরিবারকে সান্ত্বনা জানাতে গতকাল শেখ সেলিমের বাসায় যান আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য তোফায়েল আহমেদ। এ সময় তিনি সাংবাদিকদের বলেন, একটা সুখী পরিবার, সেখানে এমন একটি দুঃখজনক ঘটনা ঘটে গেল। তাঁরা শোক কাটিয়ে উঠুক, এ আশা প্রকাশ করেন তিনি। শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বি মিয়া। শেখ ফজলুল করিম সেলিমকে সান্ত্বনা দিতে ১৪ দলের নেতারা তার বাসায় গিয়েছিলেন। গত সোমবাার সন্ধ্যায় বনানীর বাসায় গিয়ে তাকে সান্ত্বনা দেন ১৪ দলের নেতারা। ১৪ দলের সমন্বয়ক ও আওয়ামী লীগ প্রেসিডিয়াম সদস্য মোহাম্মদ নাসিমের নেতৃত্বে ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন, জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু, সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ বড়ুয়া, জাসদ সাধারণ সম্পাদক শিরিন আক্তারসহ ১৪ দলের নেতারা শেখ সেলিমের বাসায় যান। এ ছাড়াও আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতারা এবং আত্মীয়স্বজন বাসায় গিয়ে শেখ সেলিমকে সান্ত্বনা দেন। গত রবিবার শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ সিরিজ বোমা হামলায় শেখ সেলিমের দৌহিত্র জায়ান মারা যায়। ওই ঘটনায় জায়ানের বাবা মশিউল হক চৌধুরী বেঁচে গেলেও তার দুই পা ড্যামেজ হয়ে গেছে।

দাদার বাড়ি দেখা হলো না জায়ানের : শ্রীলঙ্কা  থেকে  দেশে ফিরে মা-বাবার সঙ্গে দাদার বাড়ি যাওয়ার কথা ছিল জায়ান চৌধুরীর (৮)। সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার ভাটিপাড়া গ্রামে ওর দাদার বাড়ি। নাতি বাড়ি আসবে, সেই খুশিতে দাদা মতিনুল হক (এম এইচ) চৌধুরী ঢাকা থেকে চলে আসেন গ্রামের বাড়িতে। শুরু করেন বাড়ির সংস্কারকাজ। রাস্তায় নতুন মাটি ভরাট করেন। গ্রামের একে-ওকে নাতির আসার খবরটি দিয়েছেন। কিন্তু রবিবার বিকালে পাওয়া দুঃসংবাদে সব এলোমেলো হয়ে যায়।


আপনার মন্তব্য