প্রকাশ : ৩ জুলাই, ২০২০ ১০:২১
আপডেট : ৩ জুলাই, ২০২০ ১৪:৪৭

আসামি ধরতে গিয়ে ভারতে দুর্ধর্ষ গোলাগুলি, ৮ পুলিশ সদস্য নিহত

দীপক দেবনাথ, কলকাতা

আসামি ধরতে গিয়ে ভারতে দুর্ধর্ষ গোলাগুলি, ৮ পুলিশ সদস্য নিহত

ভারতের উত্তরপ্রদেশে দুর্বৃত্তদের সাথে সংঘর্ষে প্রাণ গেল ৮ পুলিশ সদস্যের। নিহতদের মধ্যে আছেন ডেপুটি পুলিশ সুপার দেবেন্দ্র কুমার মিশ্র। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে রাজ্যটির রাজধানী লখনউ থেকে ১৫০ কিলোমিটার দূরে দিকরু গ্রামে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 

দেশটির পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, খুনের ঘটনায় অভিযুক্ত কুখ্যাত দুর্বৃত্ত বিকাশ দুবে-কে আটক করতে শিবরাজপুরে গিয়েছিলেন পুলিশের এক প্রতিনিধি দল। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১টার ওই এলাকায় প্রবেশের পরই একটি বাড়ির ছাদ থেকে পুলিশ সদস্যদের ওপর এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে থাকে দুর্বৃত্তরা। এতে ডেপুটি পুলিশ সুপার, তিন সাব ইন্সপেক্টর এবং চার কনস্টেবল পদমর্যাদার পুলিশ সদস্য নিহত হন। আহত হয়েছেন চার পুলিশ সদস্য। এর মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। 

যদিও পুলিশের পাল্টা প্রতিরোধে তিন দুর্বৃত্তের মৃত্যু হয়েছে। তবে অভিযুক্ত বিকাশ দুবে এখনও পলাতক রয়েছেন। তার বিরুদ্ধে ৬০টি অপরাধের মামলা ঝুলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। যার মধ্যে ২০০১ সালে এক বিজেপি নেতার খুনের ঘটনাতেও তার নাম জড়ায়। 

কানপুর পুলিশের প্রধান দীনেশ কুমার জানান, ‘অভিযুক্তকে গ্রেফতারের উদ্দেশ্যেই কানপুরের গ্রামটিতে পুলিশ গিয়েছিল। কিন্তু দুর্বৃত্তরা গা ঢাকা দিয়ে ছিল। তিনটি দিক থেকে পুলিশের ওপর গুলি চালায় দুর্বৃত্তরা এবং এটা পুরোপুরি পরিকল্পিত হামলা।’ 

মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের শাসনকালে উত্তরপ্রদেশে একসাথে এত পুলিশ সদস্যের নিহত হওয়ার ঘটনা নজিরবিহীন। এই সংঘর্ষে পুলিশ সদস্যদের নিহত হওয়ার ঘটনায় শোকপ্রকাশ জানানোর পাশাপাশি অভিযুক্ত দুর্বৃত্তদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার হুশিঁয়ারি দিয়েছেন আদিত্যনাথ। ইতিমধ্যেই উত্তরপ্রদেশের সাথে অন্য রাজ্যে সীমানা সিল করে দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি চলছে দুর্বৃত্তদের খোঁজে তল্লাশি অভিযান। 

উত্তরপ্রদেশের ডিজি এইচ.সি অবস্তি জানান, ‘ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে রাজ্য পুলিশের বিশেষ টাস্ক ফোর্স (এসটিএফ)। এসটিএফ’এর আইজি নিজেই ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন। অপরাধীদের খোঁজে জোর অভিযান চালানো হচ্ছে। দুর্বৃত্তদের কাছে এত পরিমান অস্ত্র কি ভাবে এল তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’  

বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর