শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২৩:০৩

রেলে আসছে বড় রদবদল

চারিদিকে নানা প্রশ্ন

সাইদুল ইসলাম, চট্টগ্রাম

 রেলে আসছে বড় রদবদল

সরকারের শেষ সময়ে বাংলাদেশ রেলওয়ের বিভিন্ন শীর্ষ পদে আসছে বড় ধরনের রদবদল। চলতি মাসেই এসব রদবদল ও পরিবর্তন আসতে পারে। রেলওয়ের শীর্ষ পদ মহাপরিচালক (ডিজি) প্রকৌশলী আমজাদ হোসেনের অবসরজনিত কারণের পাশাপাশি আরও গুরুত্বপূর্ণ কয়েকটি পদেও রদবদল আসছে। তাছাড়া রেলের মহাপরিচালক (ডিজি) পদে পরবর্তী কে হচ্ছেন নাকি বর্তমান ডিজির মেয়াদ বাড়ানো হচ্ছে সেই বিষয়েও গুঞ্জন চলছে।

জানা যায়, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় রেলমন্ত্রীর মনিটরিং এ ট্রেন চলাচলে নানাবিধ সহিংসতা ও নাশকতা ঠেকিয়ে বর্তমান ডিজি আমজাদ হোসেনের নেতৃত্বে যেমনি কঠোর নজরদারি রয়েছে, ঠিক তেমনি দায়িত্বে আসছেন এমন নতুন ডিজি নিজের দায়িত্ব কতটুকু পালন করতে পারবেন সেই প্রশ্ন রেল প্রশাসনেও। নানাবিধ রাজনৈতিক বিষয় মোকাবিলায় মুখ্য ভূমিকা পালন করতে হবে ডিজিকেই। তবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের বাইরে থেকে এসে নতুন কাউকে অনুমোদন না দেওয়া পর্যন্ত বর্তমান ডিজির মেয়াদ শেষ হলেও চলতি দায়িত্ব হিসেবে সিনিয়র একজন শীর্ষ কর্মকর্তাকে দায়িত্ব দেওয়া হবে বলেও রেলওয়ে সূত্রে নিশ্চিত করা হয়েছে। রেলভবন ও পশ্চিমাঞ্চলের কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ পদে রদবদলের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পূর্বাঞ্চলের জনসংযোগ কর্মকর্তা (ডিডিপিআর) গৌতম কুণ্ডু।

জানা গেছে, রেলওয়ের সব প্রকল্প ও উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড এবং সারা দেশে ট্রেন চলাচলে আরও গতিশীল আনতে কঠোর নজরদারি ও মনিটরিং করছেন রেলপথমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক এমপি, রেলওয়ে সচিব মোফাজ্জেল হোসেন এবং রেলওয়ের মহাপরিচালক (ডিজি) প্রকৌশলী আমজাদ হোসেনসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। তাদের নির্দেশনায় পূর্বাঞ্চল ও পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের সব বিভাগের কর্মকর্তারা স্ব স্ব দায়িত্ব পালন করছেন প্রতিনিয়ত।

অন্যদিকে রেলওয়ের ডিজি ছাড়াও এডিজি (অপারেশন), জিএম (পশ্চিম-পূর্বাঞ্চল), সিওপিএস (পশ্চিম-পূর্বাঞ্চল), সিসিএম (পশ্চিম), সিসিআরএমবি (পূর্বাঞ্চল), সিপিও, সিইই, এজিএম, জনসংযোগ কর্মকর্তা পূর্বাঞ্চলসহ অন্য শীর্ষ পদেও পরিবর্তন আসছে। এতে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদে যাদের নাম শোনা যাচ্ছে বা আলোচনা হচ্ছে এমন দক্ষ ও অদক্ষ কর্মকর্তার নামও রয়েছে। তবে রেলপথ মন্ত্রী ও রেল প্রশাসন সরকারের শেষ সময়ে সরকারের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল ও রেলের গতি ও মনিটরিং করতে এমন যোগ্য কর্মকর্তাদের দায়িত্ব দিবেন বলেও মন্তব্য করেন একাধিক সাবেক ও বর্তমান কর্মকর্তা। এখানে পছন্দের অনেক কর্মকর্তাকে চেয়ারে বসাতে কৌশলী ভূমিকাও কাজ করছেন বলেও রেল অঙ্গনে আলোচনা ও গুঞ্জন রয়েছে। তাছাড়া সিসিআরএমবিসহ অনেক চিহ্নিত কর্মকর্তার বিরুদ্ধে চলমান নিয়োগ বাণিজ্যসহ নানাবিধ অভিযোগও রয়েছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর