শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:৩৪

সন্তান মেয়ে হওয়ায় পানিতে ফেলে হত্যা

অভিযুক্ত মা কারাগারে

দিনাজপুর প্রতিনিধি

সন্তান মেয়ে হওয়ায় পানিতে ফেলে হত্যা

মেয়ে সন্তান জন্ম হওয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে নবজাতককে পানিতে ফেলে দিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে কোহিনুর বেগম নামে এক মায়ের বিরুদ্ধে। দিনাজপুরের বীরগঞ্জের নোহাইল গ্রামে সোমবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ রাতেই নবজাতকের লাশ উদ্ধার এবং কোহিনুর বেগমকে আটক করে বীরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের প্রসূতি বিভাগে ভর্তি করেছে। আটক কোহিনুর নোহাইল গ্রামের আবদুর রশিদের স্ত্রী। জানা যায়, রশিদ-কোহিনুর দম্পতির রিয়া মনি নামে (২) একটি কন্যা রয়েছে। সোমবার দুপুরে কোহিনুরের কোলজুড়ে আসে আরেকটি কন্যা সন্তান। তবে কোহিনুরের বাসনা ছিল সন্তানটি ছেলে হবে।

আবদুর রশিদ জানান, সোমবার দুপুরে বাড়িতে স্বাভাবিকভাবে তার স্ত্রী কন্যা সন্তান জন্ম দেয়। রাত ৮টায় তিনি বাড়ি ফিরে দেখেন নবজাতকসহ স্ত্রী নেই। অনেক খোঁজাখুঁজির পর বাড়ির পাশে পুকুরে নবজাতককে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। এ ব্যাপারে রশিদ বাদী হয় কোহিনুর বেগমকে আসামি করে হত্যা মামলা করেছেন।

বৃদ্ধাকে গলা কেটে হত্যা : সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, পৌর এলাকায় নাজমা বেগম (৬৫) নামে এক বৃদ্ধাকে গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। সোমবার রাতে শহরের চৌরাস্তা মোড় নিজ বাসায় এ ঘটনা ঘটে। নাজমা ওই এলাকার প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধা তোজাম্মেল হকের স্ত্রী।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর