শিরোনাম
প্রকাশ : ১৩ জুলাই, ২০২০ ১৪:৩৯
আপডেট : ১৩ জুলাই, ২০২০ ১৪:৪৩

দিনাজপুরে নিম্নাঞ্চল ফের প্লাবিত

দিনাজপুর প্রতিনিধি:

দিনাজপুরে নিম্নাঞ্চল ফের প্লাবিত

কয়েক দিনের বৃষ্টি আর উজানের নেমে আসা পানিতে দিনাজপুরসহ বিভিন্ন উপজেলার নিম্নাঞ্চল ফের প্লাবিত হয়েছে। জেলার প্রধান তিনটি নদীর পানি বিপপসীমা ছুঁই ছুঁই করছে। এরমধ্যে আত্রাই নদীর পানি মাত্র ২৭ সে.মি. বাড়লেই বিপদসীমা অতিক্রম করবে। 

সোমবার দুপুরে আত্রাই নদীতে ৩৯.৩৮০ মিটার-এ পানি অবস্থান করে। এর বিপদসীমা ৩৯.৬৫০ মিটার। বৃষ্টি অবিরাম থাকলে আত্রাই নদীর পানি বেড়ে মঙ্গলবার সকালের মধ্যে বিপপসীমা অতিক্রম করবে বলে আশঙ্কা করেছেন পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) কর্মকর্তা। 

এদিকে করোনার এই সময়ে কয়েকদিনের অবিরাম টানা বর্ষণ ও উজানের নেমে আসা আত্রাই নদীর পানি বিপদসীমা অতিক্রম করলেই বীরগঞ্জে শতগ্রাম ইউনিয়নের কাশিনগর, গড়ফতু ও বলদিয়াপাড়া এলাকায় নদীর পানি প্রবেশ করে প্লাবিত হওয়ার আশঙ্কায় রয়েছে এইসব এলাকার মানুষ। এ ছাড়াও দিনাজপুর সদরের মাঝাডাঙ্গা, বাঙ্গীবেচা ঘাট, সাধুর ঘাট, হঠাৎপাড়ার নিচু এলাকা প্লাবিত হয়েছে। কাহারোল উপজেলার বলেয়া ও ভেলোয়া গুচ্ছ গ্রামগুলোর চারিদিকে নিম্নাঞ্চল তলিয়ে গেছে। ফুলবাড়ী উপজেলার রাজারামপুর, সুজাপুর, খয়েরবাড়ী ও বেতদিঘি, বিরলসহ কয়েক উপজেলার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। কিছু জায়গায় ডুবেছে ফসলের ক্ষেত। আগাম তৈরি করা আমন ধানের বীজতলা তলিয়ে গেছে অনেকের। এতে সাধারণ নিম্ন আয়ের মানুষ পড়েছে দুর্ভোগে। 

দিনাজপুর পাউবোর পানি বিজ্ঞান উপ-বিভাগের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মো. ইলিয়াস হোসেন জানান, সোমবার দুপুরে দিনাজপুর জেলার উপর দিয়ে প্রবাহিত পুনর্ভবা নদীতে পানির স্তর ছিল ৩১.৫১০ মিটার এর বিপদসীমা ৩৩.৫০০ মিটার, আত্রাই নদীতে ৩৯.৩৮০ মিটার এর বিপদসীমা ৩৯.৬৫০ মিটার ও ইছামতি নদীতে ২৮.৫১০ মিটার এর বিপদসীমা ২৯.৯৫০ মিটার। তবে অবিরাম বৃষ্টি হয় তাহলে মঙ্গলবার সকালের মধ্যে কোন নদীর পানি বিপদসীমা অতিক্রম করতে পারে। তবে আর বৃষ্টিপাত না হলে পানি দ্রুত নেমে যাবে বলেও জানান তিনি। এছাড়াও জেলার অন্যান্য ছোট নদীর পানিও বৃদ্ধি পেয়েছে।  

বিডি প্রতিদিন/মজুমদার


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর