শিরোনাম
প্রকাশ : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ১৭:৫৭

গাংনীতে ঠিকাদারের মামলায় সড়কের কাজ বন্ধ তিন বছর

মেহেরপুর প্রতিনিধি

গাংনীতে ঠিকাদারের মামলায় সড়কের কাজ বন্ধ তিন বছর

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার তিনটি সড়কের সংস্কার কাজ তিন বছর ধরে আটকে আছে। সড়ক তিনটি হলো উপজেলার বামুন্দী-কাজিপুর, আকুবপুর-গোয়ালগ্রাম ও কাজিপুর-নওদাপাড়া।

উপজেলা প্রকৌশলীর কার্যালয় সূত্র জানায়, ২০১৭ সালে বামুন্দী-কাজিপুর সড়ক ১ কোটি ৫ লাখ, আকুবপুর-গোয়ালগ্রাম সড়ক ১ কোটি ১৩ লাখ ও নওদাপাড়া-কাজিপুর সড়ক সংস্কারে প্রায় ৩ কোটি টাকার দরপত্র আহ্বান করা হয়। কাজ তিনটি পায় জাকির ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী জাকাউল্লাহ জাকির। এ দিনই দরপত্রে অসংগতি থাকায় প্রকৌশল অধিদপ্তর পুনঃ দরপত্র আহ্বান করে। এ কারণে প্রথম দরপত্র আহ্বানে কাজ পাওয়া ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানটি আদালতে মামলা করে। পরে আদালতের নির্দেশে সড়কের কাজ বন্ধ হয়ে যায়। 

উপজেলার বামুন্দী-কাজিপুর সড়কে সরেজমিনে দেখা যায়, বামুন্দী বাজার থেকে এক কিলোমিটার পথ পেরোলেই পিচঢালা সড়কটি একেবারে খানাখন্দে ভরা। এসব খানাখন্দে জমে আছে বৃষ্টির পানি। পথচারীরা জানান, এ সড়কে চলতে অসুস্থ ব্যক্তিদের অনেক ভোগান্তি পোহাতে হয়। এ ছাড়া কোনো যানবাহন নিয়ে যেতেও বেশ বেগ পেতে হয়। 
ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জাকির ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী জাকাউল্লাহ জাকির বলেন, ‘একই দিনে ৯টি সড়ক উন্নয়নকাজের দরপত্রের লটারি হয়। আমার প্রতিষ্ঠান তিনটি কাজ পেলেও দরপত্রে ভুল আছে উল্লেখ করে আবার দরপত্র আহ্বান করা হয়। এ জন্য আদালতের শরণাপন্ন হয়েছি।’ 

এ বিষয়ে গাংনী উপজেলা প্রকৌশলী গোলাপ আলী বলেন, মামলাটি প্রায় শেষের পথে। নিষ্পত্তি হলেই সড়ক সংস্কারের কাজ শুরু করা হবে। 

বিডি-প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর