শিরোনাম
প্রকাশ : ২০ অক্টোবর, ২০২০ ১৬:১৭
আপডেট : ২০ অক্টোবর, ২০২০ ১৬:২৮

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গৃহবধূর লাশ হাসপাতালে রেখে পালাল স্বামী

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গৃহবধূর লাশ হাসপাতালে রেখে পালাল স্বামী

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতালে শিল্পী আক্তার (১৮) নামে এক গৃহবধূর লাশ রেখে পালিয়েছে তার স্বামী। সোমবার রাত প্রায় ৮টার দিকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে এ ঘটনা ঘটে। নিহত শিল্পী আক্তার মাধবপুর উপজেলার বুল্লা ইউনিয়নের মাল্লা গ্রামের দক্ষিণ পাড়া এলাকার মৃত ফিরোজ মিয়ার মেয়ে। 

তবে নিহত শিল্পী আক্তারের পরিবারের অভিযোগ, তাকে হত্যার পর মুখে বিষ দেয়া হয়েছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, প্রায় ৩ মাস পূর্বে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বিজয়নগর উপজেলায় চান্দুরা ইউনিয়নের জালালপুর গ্রামের মতি মেম্বারের বাড়ির মৃত তালেব আলীর ছেলে ফারুক মিয়া বিয়ে হয় শিল্পীর। বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের জন্য তাদের পারিবারিক কলহ লেগে থাকত। গত কয়েকদিন ধরে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া চলছিলো। সোমবার সন্ধ্যায় বাসায় শিল্পীকে ঘরের বিছানায় অচেতন অবস্থায় মুখ থেকে ফেনা বের হতে দেখে ফারুক। অবস্থার অবনতি হলে চিকিৎসার জন্য স্বামী ও পরিবারের লোকেরা তাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. নাজমুল হক রনি মৃত ঘোষণা করলে স্বামী ফারুক ও তার পরিবারের লোক কাউকে পাওয়া যায়নি। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর