শিরোনাম
প্রকাশ : ২৭ অক্টোবর, ২০২০ ২১:৫৩

জমি লিখে নিয়ে প্রতিবন্ধী বাবা-মাকে নির্যাতনের অভিযোগ

বরগুনা প্রতিনিধি:

জমি লিখে নিয়ে প্রতিবন্ধী বাবা-মাকে নির্যাতনের অভিযোগ

প্রতিবন্ধী বৃদ্ধ বাবা ও বৃদ্ধা মাকে নির্যাতন করে জোরপূর্বক জমি লিখে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে ছেলে মাহবুব খোকন (৫০) ও তার স্ত্রী সুফিয়া বেগম (৪২) এর বিরুদ্ধে। বরগুনার তালতলী উপজেলার বড়বগী ইউনিয়নের বড়ভাই জোড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আবারও খোকন ও তার স্ত্রী সুফিয়া বেগম আরও জায়গা লিখে দেবার জন্য বাবা মোহাম্মদ হাফেজকে (৮০) নির্যাতন করে বলে অভিযোগ।  

শারীরিক প্রতিবন্ধী মোহম্মদ হাফেজ জানায়, তাদের ২ ছেলে এবং ১ মেয়ে। মেয়েকে অনেক আগেই বিয়ে দিয়েছেন। আর এক ছেলে বাকপ্রতিবন্ধী। তিনিও তার স্ত্রী ছগিনা বেগম (৭০) শারীরিক প্রতিবন্ধী হওয়ায় চলাচলে সমস্যা হয়। বড় ছেলে স্ত্রীসহ একই বাড়ীতে বসবাস করতো। ২০১৯ সালে ছেলে খোকন ও তার স্ত্রী সমস্ত সম্পত্তি তাদের নামে লিখে দেবার জন্য দুজনকে শারীরিক নির্যাতন শুরু করে। এক পর্যায়ে জোর করে ১৮ কাঠা জমি লিখে নিয়ে তাদের ২ জনকে ও তাদের বাকপ্রতিবন্ধী ছেলেকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়। 

মোহাম্মদ হাফেজ বলেন, বাড়ী থেকে তাড়িয়ে দেবার পরে কয়েক মাস মেয়ের বাড়িতে থেকেছেন। আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় খোকন ও তার স্ত্রী, নাতিরা এসে নতুন বাড়িও তাদেরকে লিখে দিতে বলে। এক পর্যায়ে খোকন তার বাবাকে মারধর করলে স্ত্রী ছখিনা বেগম বাঁধা দিলে তাকেও খোকন মারধর করেছে বলে মোহম্মদ হাফেজ জানায়। এ সময় স্থানীয় লোকজনের হস্তক্ষেপে খোকনকে প্রতিরোধ করা হয়।

তালতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামরুজ্জামান মিয়া সাংবাদিকদের বলেন, বাবা-মাকে নির্যাতনের কোন অভিযোগ আমরা পাইনি। লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর